“আগেও খুন হয়েছে, এবারও হবে”, আবার বেফাঁস মন্তব্য অনুব্রত মন্ডলের

একুশের নির্বাচন উপলক্ষে রাজ্য রাজনীতি থেকে বিতর্ক যেন কোনোভাবেই দূর করা যাচ্ছে না। তা সে রাজ্য শাসক দলই হোক কিংবা বঙ্গ বিজেপি শিবিরের নেতারা, আলটপকা বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে বারংবার প্রচারে চলে আসছেন তারা। সম্প্রতি, “ভয়ংকর খেলা হবে” সূচক মন্তব্যের জেরে নির্বাচন কমিশনের নোটিশ পান বীরভূমের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল।

তাতে অবশ্য বিন্দুমাত্র বিচলিত নন তৃণমূলের এই হেভিওয়েট নেতা। এবার আরও একধাপ এগিয়ে তিনি বলেন, “২০১১ তে খুন হয়েছিল, ২০১৪ তে খুন হয়েছিল, ২০১৯ এ খুন হয়েছিল। এবারেও হবে!” তার এমন মন্তব্যের জেরে স্বভাবতই রাজ্য রাজনীতি ফের উত্তাল হয়ে উঠেছে। তার বিতর্কিত মন্তব্য প্রসঙ্গে নির্বাচন কমিশনের জবাব তলবের পরিপ্রেক্ষিতে সংবাদমাধ্যমের সামনে আবার এমনই বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন অনুব্রত মণ্ডল।

শোকজ নোটিশ পাওয়ার পর অনুব্রত মণ্ডল সাংবাদিকদের সামনে বলেন, “দিলীপ ঘোষ, রাহুল সিনহারা যে মন্তব্য করছেন তা ঠিক নয়। এটা যদি আমি বলতাম ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আমি নজরবন্দি হয়ে যেতাম। আমায় এইভাবে থামাবে ভেবেছে! লাভ নেই। আর ভোট শান্তিপূর্ণ হবে কি না ভবছেন! ২০১১ তে খুন হয়েছিল, ২০১৪ তে খুন হয়েছিল, ২০১৯ এ খুন হয়েছিল। এবারেও হবে।’

পাশাপাশি নির্বাচন কমিশনকেও “অন্ধ ধৃতরাষ্ট্র” বলে কটাক্ষ করেছেন তিনি। এদিন তিনি বলেন নির্বাচন কমিশন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রচারের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। অথচ বিজেপির দিলীপ ঘোষের বক্তব্যও উস্কানিমূলক। কিন্তু তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়নি কমিশন।