টিকটকখ্যাত নিখোঁজ গৃহবধূকে নিয়ে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য

টিকটকখ্যাত নিখোঁজ গৃহবধূকে নিয়ে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য

টিকটক খ্যাত জনপ্রিয় বধূ বেশ কয়েকদিন ধরেই নিখোঁজ। ওই বধূ সোশ্যাল মিডিয়া টিকটকে জ্যাসমিন নামেই বেশি পরিচিত। টিকটক ভিডিওয়ের জেরে তিনি রাতারাতি লোকের নজরে এসেছিলেন। দিনকে দিন বেড়ে চলছিল তার ভক্তের সংখ্যা। কিন্তু বেশ কয়েকদিন যাবৎ তিনি উধাও, তাঁর কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিলো না। তবে এবার নিজেই দিলেন নিজের খোঁজ। ভিডিও কলিং করে তিনি তার আস্তানার কথা জানালেন। তিনি ভিডিও কলিংয়ে জানান যে তিনি দিল্লিতে রয়েছেন, তার এক বন্ধুর রয়েছেন তিনি কিছুদিন যাবত।

এদিকে ওই বধূর স্বামী স্ত্রীর কোনো খোঁজ না পেয়ে সোজা পুলিশে মিসিং ডায়েরি করেন স্বামী। কিন্তু কাহিনী অন্যদিকে বাক নেয়, যখন ওই বধূ জানান যে তাকে শ্বশুরবাড়িতে হেনস্থা করা হতো, এমনকি স্বামী তাকে ধরে মারতো। তবে এইসব অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন ওই বধূর স্বামী। জানা গিয়েছে, টিকটকে ফেমাস হওয়ার পরই তার কাছে দিল্লিতে একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার অফার আসে।

সে সুযোগকে হাতছাড়া না করার জন্য তিনি দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা হন গত 31শে ডিসেম্বর। কিন্তু বাড়ি থেকে বের হবার পর থেকেই যোগাযোগ পুরোপুরি বিছিন্ন হয়ে যায়। ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্ঠা করা হলেও কোনো লাভ হয়নি, শেষে পুলিশের দ্বারস্থ হয় ওই বধূর স্বামী। কিন্তু অন্যসূত্র মারফত জানা গিয়েছে যে ওই বধূ প্রতিনিয়ত তার মায়ের সাথে যোগাযোগ রেখেছিলো। কিন্তু তাহলে কি জন্য নিখোঁজ ডায়েরি করা হলো তা নিয়ে সন্দেহ দানা বাধে।

কিন্তু ওই বধূ অন্য কথা বলছে, তার অভিযোগ তিনি যেদিন দিল্লি যাবার জন্য তৈরি হয়েছিলেন সেদিনও তাকে তার শ্বশুরবাড়ির লোকেরা বাধা দিয়েছিলো, কিন্তু সব অভিযোগ মিথ্যা বলে উড়িয়ে দেয় ওই বধূর স্বামী। এনিয়ে জলঘোলা হয়েছে প্রচুর। কে মিথ্যা বলছে আর কে সত্যি বলছে তা নিয়ে ধন্ধে পুলিশ। তবে ওই বধূর প্রতিবেশীরা বলছেন যে, এর আগেও ওই বধূ বাড়ি থেকে বের হয়ে গিয়েছিলো