বি’শ্বে’র একদম প্র’থ’ম SMS, কি লে’খা হয়েছিল তা’তে?

আজকালকার যুগে হোয়াটসঅ্যাপ এসএমএস ছাড়া একে অপরের সঙ্গে যোগাযোগ করার কথা যেন ভাবাই যায় না। এই উন্নত প্রযুক্তির যুগে এবং ইন্টারনেটের যুগে বেশিরভাগ কথাই ফোনের মেসেজ বক্স কিংবা হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ কিংবা ফেসবুকের মত সোশ্যাল মিডিয়া মারফত হয়ে যায়। এমন কি আলাদা করে ফোন করারও দরকার থাকে না অনেক সময়। মেসেজ মারফত সব কথা হয়ে যায়।

এই উন্নত প্রযুক্তির যুগে মানুষ একে অপরকে চিঠির বদলে “মেসেজ” পাঠাতেই অভ্যস্ত। অফিশিয়াল কাজকর্ম ছাড়া এখন আর চিঠির তেমন প্রয়োজন পড়ে না। বন্ধুবান্ধব, হোক কিংবা আত্মীয়-স্বজন, এমনকি মা-বাবাকেও মেসেজ পাঠাতে অভ্যস্ত হয়ে পড়ছি আমরা। তবে জানেন কি বিশ্বে প্রথম মেসেজটি কে এবং কাকে পাঠিয়েছিলেন? কি বার্তা লেখা হয়ে থাকতে পারে সেই মেসেজে? জানতে মন চায় নিশ্চয়ই।

একটি আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইটে সেই উত্তর মিলেছে। ওই ওয়েবসাইটের রিপোর্ট অনুসারে ১৯৯২ সালের ৩রা ডিসেম্বর মার্কিন ইঞ্জিনিয়ারিং সংস্থা সেমা গ্রুপ এর ২২ বছর বয়সি এক ইঞ্জিনিয়ার যার নাম নেইল পাপওয়ার্থ, তিনি প্রথম তার বন্ধুকে মেসেজ পাঠিয়েছিলেন। রিচার্ড জার্ভিসকে মেসেজ পাঠান তিনি। সেই মেসেজে লেখা ছিল “মেরি ক্রিসমাস”। প্রযুক্তির ইতিহাসের যুগান্তকারী অধ্যায়ের সূচনা হয়েছিল এখান থেকেই।