গর্ভধারণ করার জন্য কোন মাসটি সবথেকে খারাপ! জানা আছে কি আপনার?

মা হবার জন্য কোন নির্দিষ্ট সময় কি সঠিক বলে মনে করা যায় না। চিকিৎসকের পরামর্শমতো চললেও মা হবার জন্য লাগে কিছুটা ভাগ্য। কখন কিভাবে একজন মা গর্ভধারণ করবে তা আগে থেকে বলা যায় না। কিন্তু এখন পরিস্থিতি অনেকটাই অন্য। তাই চিকিৎসকরা পরামর্শ দিচ্ছেন এমন কিছু কিছু সময় গর্ভধারণ করতে, যাতে ভবিষ্যতে কোনো রকম সমস্যা না হতে পারে।

সন্তান জন্ম দেবার আগে থেকেই আমাদের প্ল্যানিং চলে। শারীরিক-মানসিক অর্থনৈতিক সবকিছু দিক থেকেই আমাদের সফল হতে হয় আগে। না হলে একজন সন্তানকে পৃথিবীর আলো দেখানোর আগে বহুবার ভাবনা চিন্তা করতে হয়। আজ এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে আপনাকে জানাবো,বছরের কোন সময় এটা আপনার সন্তান জন্ম দেবার জন্য খারাপ হতে পারে।

বছরের এমন কিছু কিছু সময় আসে যখন সন্তান জন্ম দিলে প্রিম্যাচিউর বেবি হবার সম্ভাবনা থেকে যায়। তাই কনসিভ করার আগে অবশ্যই জেনে নিন সেই মাস গুলির কথা। প্রসিডিংস অব দ্য ন্যাশনাল অ্যাকাডেমি সাইন্স এ প্রকাশিত একটি জার্নাল অনুযায়ী মে মাসে সবথেকে বেশি ঝুঁকি বেড়ে যায় করলে। প্রায় ৬৫৭০৫০ জন মায়ের ওপর একটি পরীক্ষা করা হয়েছিল। এই গবেষণায় জানা গেছে যে, যে সমস্ত মেয়েরা মে মাসে কনসিভ করেন, তাদের তৃতীয় ত্রৈমাসিক জানুয়ারি অথবা ফেব্রুয়ারি মাসে পড়ছে। তার বেশিরভাগ মানুষ সময়ের আগে শিশু জন্ম দিয়ে ফেলেছেন।

গবেষকদের মতে অনুযায়ী, শীতকালে বেশি সংক্রমণের হার বেড়ে যায়। এই সময়ে প্রিম্যাচিওর লেবার হতে পারে বলে ধারণা করেছেন তারা।সময়ের আগে জন্ম দিনের শিশুর দুর্বল হজম ক্ষমতা এবং শ্বাস প্রশ্বাস ক্ষমতা দুর্বল হতে পারে। আবার অনেক সময় প্রিম্যাচিওর বেবি কে অনেক দিন হাসপাতালে রেখে দেবার দরকার হয়।দুর্ভাগ্য থাকলে অনেক সময় প্রিম্যাচিউর বেবি বেশি দিন বাঁচে না।

তাই চিকিৎসক এর মত অনুযায়ী মে মাসে কনসিভ না করাই ভালো। আর যদি মে মাসে কনসিভ করে ও থাকেন তাহলে ডাক্তারের সঙ্গে আগেই ফ্লু ভ্যাকসিন নিয়ে কথা বলে নিন। নিজেকে অন্য মানুষের থেকে দূরে রাখার চেষ্টা করুন। সমস্ত রকম স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার চেষ্টা করুন। মনে রাখবেন আপনার উপরই নির্ভর করে রয়েছে আরও একটি জীবন।