উপত্যকায় ফের সংঘর্ষ বিরতি লঙ্ঘন করল পাকিস্তান, চলল গোলাবর্ষণ

উপত্যাকা অঞ্চলে আবারো সংঘর্ষ বিরতি লঙ্ঘন করল পাকিস্তান। ভারতীয় সেনাবাহিনী সূত্রে খবর, সোমবার গভীর রাতে জম্মু এবং কাশ্মীরের রাজৌরি জেলায় ভারত-পাক নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর গোলা গুলি ছুঁড়তে শুরু করে পাক সেনাবাহিনী। পাক সেনাবাহিনীর আক্রমণের পাল্টা আক্রমণ চালায় ভারত। তবে এদিন পাক সেনাবাহিনীর আক্রমণের মুখে পড়ে জুনিয়র কমিশনড অফিসার সুবেদার সুখদেব সিংহ নামক এক ভারতীয় জওয়ান শহীদ হয়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর মুখপাত্র লেফটেন্যান্ট কর্নেল দেবেন্দর আনন্দ জানালেন, সোমবার গভীর রাতে সংঘর্ষ বিরতি লংঘন করে রাজৌরির নওশেরা সেক্টরে নিয়ন্ত্রণ রেখায় ভারতীয় সেনার ওপর অপ্রত্যাশিতভাবে হামলা চালায় পাকিস্তান। বিনা প্ররোচনাতেই পাকিস্তানের তরফ থেকে প্রথম আক্রমণ চালানো হয় এদিন। ভারতীয় সেনা বাহিনীকে লক্ষ্য করে গোলাগুলিবর্ষণ করে থাকে তারা।

পাকিস্তানি সেনা বাহিনীকে প্রতিহত করতে এরপর পাল্টা আক্রমণ চালায় ভারত। সেনাবাহিনী সূত্রে খবর, এদিন ভারতের তরফ থেকে আচমকা আক্রমণের উপযুক্ত জবাব পেয়েছে পাকিস্তানি সেনাবাহিনী। তবে, সংঘর্ষ চলাকালে গুরুতরভাবে জখম হন সুবেদার সুখদেব সিং। পরে অবশ্য তাঁর মৃত্যু হয়। শহিদ জওয়ানের উদ্দেশ্যে বলতে গিয়ে লেফটেন্যান্ট বললেন, সুবেদার সুখদেব সিং ভারতীয় সেনাবাহিনীর এক অসম সাহসী এবং খাঁটি সৈনিক ছিলেন।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর কাছে তিনি চিরকাল অনুপ্রেরণা হয়ে থাকবেন। লেফটেন্যান্ট আরো বলেছেন, দেশের সুরক্ষায় কর্তব্য পালন করতে গিয়ে শহীদ জওয়ানের এই সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারের জন্য দেশবাসী চিরকাল তার কাছে কৃতজ্ঞ থাকবে। উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবারেও উত্তর কাশ্মীরের কুপওয়ারা জেলার নওগাম সেক্টরে বিনা প্ররোচনায় সংঘর্ষ বিরতি লংঘন করে ভারতীয় সেনাবাহিনীর উপর আক্রমণ করে বসে পাকিস্তান। ঐদিন পাকিস্তানের আঘাতে ভারতের দুই জওয়ান শহীদ হন এবং আরো চারজন আহত হন।