তটস্থ, ক’রো’নার ভয়ে বিমানের সব টিকিট কেটে নিলেন এক ব্যক্তি

বিগত প্রায় এক বছর ধরে বিশ্বজুড়ে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে করোনা। করোনা প্রতিরোধী ভ্যাকসিন আবিষ্কৃত হলেও এখনো পর্যন্ত করোনা নির্মূল করা সম্ভব হয়নি। এরই মধ্যে আবার শক্তি বৃদ্ধি করে নতুন রূপে পৃথিবীতে আঘাত হেনেছে করোনা। তাই সাবধানতা অবলম্বন করতেই হচ্ছে। সাবধানতার সঙ্গে আপস করলেন না ইন্দোনেশিয়ার এক ব্যক্তি। সোশ্যাল ডিসটেন্স মেনটেন করতে তাই আস্ত একখানা বিমানের সব সিটই বুক করে ফেললেন তিনি

লকডাউন পর্বে অনেকেই অবশ্য প্রাইভেট বিমান ভাড়া নিয়ে যাতায়াত করেছেন। তবে এবার যা ঘটল সেটিকে প্রায় নজিরবিহীন বলেই মনে করছে নেট দুনিয়া। ইন্দোনেশিয়ার জাকার্তার বাসিন্দা রিচার্ড মুলজাদি তার স্ত্রীর সঙ্গে বালি যাওয়ার পরিকল্পনা করেন। তবে বর্তমান করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে বিমানে সকলের সঙ্গে যেতে তিনি ঠিক ভরসা পাননি। তাই সর্তকতা অবলম্বন করতে গিয়ে “বাটিক এয়ার” বিমানসংস্থার একটি বিমানের সবকটি টিকিট কেটে ফেলেছেন ওই ব্যক্তি।

ইন্দোনেশিয়ার বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে এই খবর প্রচারিত হয়েছে। ওই ব্যক্তিও নিজের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে এই খবর জানিয়েছেন। ইনস্টাগ্রামে তিনি লিখেছেন, “আমি এবং আমার স্ত্রী, শুধু দুজনেই যাতে বিমানে সফর করতে পারি তার জন্য যতগুলি সম্ভব বিমানের সিট বুকিং করে ফেলেছি।” তিনি আরো লিখেছেন, এভাবে বিমানের সিট বুক করে নেওয়াতে আস্ত একটি বিমান ভাড়া করার তুলনায় অনেক খানি সাশ্রয় হলো।

সম্পূর্ণ ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসতেই নেটিজেনদের মধ্যে বেশ সাড়া ফেলে দিয়েছে। বিমানের সিট ভাড়া করতে তার ঠিক কত খরচ হয়েছে, সে বিষয়ে কোনো তথ্য অবশ্য পাওয়া যায়নি। “বাটিক এয়ার” বিমানসংস্থার তরফ থেকে নিশ্চিত করা হয়েছে, ওই বিমানে ঐদিন রিচার্ড মুলজাদি এবং তার স্ত্রী বাদে অন্য কোনো যাত্রী ছিলেন না। মুলজাদি এবং তার স্ত্রী নিজেদের নামেই বিমানের সকল টিকিট কেটেছিলেন বলে জানা গিয়েছে।