ভালোবাসার অভিনয় করে দেহ ব্যবসায় নামাতো মেয়েদের, পোস্তায় আটক নারী পাচার কাণ্ডের মুলচক্রী

প্রথমে প্রেমের ফাঁদে ফেলতে না পরী তাদের পাচার করত এক যুবক। ধরা পরল পোস্তা থেকে সেই যুবক। নারী পাচার দেশের বিভিন্ন জায়গাতে প্রত্যেকদিন হতে থাকে তা হয়ত আমরা গুণে শেষ করতে পারবো না আমাদের সাধারন মানুষের মনেই লুকিয়ে থাকে সেই সমস্ত যারা এই কাজের সঙ্গে যুক্ত থাকে। অনেক সময় আমাদের জীবনের সব থেকে কাছের মানুষগুলো হয়ে ওঠে এইরকম অপরাধী আমরা হয়তো টের পেয়ে থাকি না। এক যুবক প্রেমের ফাঁদে ফেলতে অনেক তরুণীদের আর পরে সময় বুঝে তাদের পাচার করে দিত।

খবর সূত্রে জানা গেছে যে এই সমস্ত তরুণীদের চাকরি দেবে বলে লোভ দেখিয়ে ভারতের অনেক রাজ্যে পাচার করেছে। জানা গেছে যে বাংলাদেশ থেকে যে সমস্ত তরুণীরা কাজের জন্য এদেশে আসত তাদেরও পাচার করে দিত সে। এই অপরাধীর নাম হল প্রফুল্ল এবং অবশেষে তার অপরাধের দিন শেষ হলো এবং কলকাতা পুলিশের হাতে ধরা পরল সে।

খবর সূত্রে জানা গেছে যে প্রফুল্ল সম্পর্কে ব্যাঙ্গালোরের পুলিশ কলকাতা পুলিশ জানিয়েছিল এবং তারা জানিয়েছিল যে বাংলাদেশের অনেক তরুণীদের দক্ষিণ ভারতে পাচার করছে সে, এই খবরটা পাওয়ার পরে কলকাতার পুলিশের তদন্তে নামে এবং কলকাতার থেকে রবিবার দিন এই তাকে গ্রেপ্তার করে। প্রফুল্ল হলো উড়িষ্যার বালেশ্বর এর বাসিন্দা।

জানা গেছে যে নারী পাচারকারীর সঙ্গে প্রফুল্ল বেশ গভীরভাবে জড়িত এবং এই হল বড় পান্ডা। প্রফুল্ল সম্পর্কে অভিযোগ আছে যে বাংলাদেশ থেকে যে সমস্ত তরুণীর ভারতে এসেছিল কাজের জন্য তাদের পাচার করেছে সে। কিছু মাস আগেই তার অপরাধের অনেক হদিশ পাওয়া গিয়েছিল। ব্যাঙ্গালুরুতে একটি অ্যাপার্টমেন্ট থেকে কয়েকটি তরুণীকে উদ্ধার করেছিল এবং তারপরেই তাদের কাছ থেকে জানা গিয়েছিল সমস্ত ঘটনা।

এই সমস্ত উদ্ধার করা তরুণীদের মধ্যে একজন বাংলাদেশের এবং একজন পশ্চিমবঙ্গের তরুণী ছিলেন। যেসব তরুণীদের ব্যাঙ্গালুরুর ওই অ্যাপার্টমেন্ট থেকে উদ্ধার করা হয়েছিল তারা জানায় যে প্রফুল্ল নামের একজন ই তাদের প্রথমে প্রেমের ফাঁদে ফেলেছেন এবং তারপরেই চাকরি দেওয়ার নাম করে এখানে এনে দেহ ব্যবসার কাজে লাগিয়ে দিয়েছিল। কলকাতা পুলিশের কাছে সমস্ত খবর আসার পরে কলকাতা পুলিশ তদন্তে নামে, এবং অবশেষে রবিবার দিন তাকে গ্রেপ্তার করে আপাতত খবর সূত্রে জানা গেছে যে প্রফুল্লকে বেঙ্গালুরু পুলিশের হাতে তুলে দেবে কলকাতা পুলিশ আপাতত প্রফুল্লকে জেরা করা হচ্ছে এই ঘটনা চক্রের সঙ্গে আর কারা কারা জড়িত রয়েছে সে ব্যাপারে।