বন্ধুত্বের আড়ালে ছুরি মেরেছে কাছের বন্ধু সন্দীপ, অভিযোগ সুশান্তের পরিবারের, ঘনীভূত হচ্ছে রহস্য

গত ১৪ ই জুন নিজ বাসস্থানে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন সুশান্ত সিং রাজপুত। তারপর থেকেই তার মৃত্যুর কারণ নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। এবার পুলিশি তদন্তে,সন্দেহের তীর উঠে আসছে সুশান্তের প্রিয় বন্ধু সন্দীপ সিং এর দিকে।সন্দীপের প্রতি সুশান্তের পরিবারের অভিযোগ, সুশান্তের ইনস্টাগ্রামের পোস্ট ডিলিট করছেন তিনি। বিগত কয়েকদিন ধরে তার মৃত্যুর পেছনে বলিউড ইন্ডাস্ট্রির যে নামিদামি ব্যক্তিত্বদের নাম উঠে আসছিল তাদেরকে বাঁচাতে সন্দীপ এ কাজ করেছেন বলে লিখিত আবেদন দেওয়া হয়েছে মুম্বাই পুলিশকে।

এই ঘটনায় প্রশ্ন উঠছে, পুলিশি তদন্ত চলাকালীন সুশান্তের পোস্ট ডিলিট কেন করতে গেলেন সন্দীপ। তবে কি এর পেছনে বলিউড অধিকর্তাদের হাত আছে? সন্দীপের বিরুদ্ধে তদন্ত চেয়ে তার কল রেকর্ডসও খতিয়ে দেখতে অনুরোধ জানানো হয়েছে মুম্বাই পুলিশকে।সুশান্তের মৃত্যুর আগে তার ইনস্টাগ্রাম একাউন্ট থেকে বেশ কিছু পোস্ট ডিলিট করা হয়েছিল।এমনকি মৃত্যুর পরও একের পর এক অভিযোগ আসে যে তার টুইটার একাউন্টে বেশ কিছু টুইট ডিলিট করা হচ্ছে, কে বা কারা যেন প্রয়াত অভিনেতার ইনস্টাগ্রাম চালনা করছে।

মানসিক অবসাদে ঘিরে এই চরম সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হন সুশান্ত,এ তথ্য বারবার সামনে এসেছে।শনিবার পর্যন্ত মুম্বাই পুলিশ সুশান্তের বাবা,দিদি এবং প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী সহ ২৫ জনের জবানবন্দি নিয়েছে। তবে মৃত্যুর কারণ নিয়ে এখনো ধোঁয়াশা রয়ে গেছে।