অবশেষে খোঁজ মিললো অরুনাচলে পাঁচ নিখোঁজ হওয়া যুবকদের, সকলেই লাল ফৌজের হাতে বন্দি

অবশেষে পাঁচ দিনের মাথায় অরুণাচল প্রদেশের ভারত-চীন সীমান্ত থেকে নিখোঁজ পাঁচ ভারতীয় যুবকের খোঁজ মিলল। সীমান্ত থেকে চীনা সেনারা তাদের অপহরণ করেছিল বলে অভিযোগ ওঠে। সম্প্রতি, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কিরন রিজিজু জানিয়েছেন, চীনা সেনাবাহিনীই তাদের খুঁজে পেয়েছে বলে জানা গেছে। বর্তমানে তাদের ভারতে ফেরানোর ব্যবস্থা করছে চীন। উল্লেখ্য, গত শুক্রবার ভারত-চীন সীমান্তে অবস্থিত অরুণাচল প্রদেশের আপার সুবানসিরি জেলার নাচাতে জঙ্গলের মধ্যে শিকার করতে গিয়েছিলেন ওই পাঁচ জন যুবক। এরপর থেকেই তাদের আর খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। তাদের পরিবারবর্গের দাবি ছিল, চীনা সেনাবাহিনী তাদের অপহরণ করে নিয়ে গেছে। ওই যুবক দলের সঙ্গে থাকা দুইজন যুবক কোনো রকমে চীনা সেনাবাহিনীর নজর এড়িয়ে পালিয়ে এসে সব ঘটনা জানান।

এরপর পাঁচ জনকে অপহরণ করার খবর পুলিশের কাছে জানানো হয়। যে পাঁচজনকে চীনা সেনাবাহিনী অপহরণ করেছে তারা ভারতীয় সেনাবাহিনীর জন্য পোর্টার এবং গাইডের কাজ করতেন বলে জানা গেছে। অপহৃত ব্যক্তিদের নাম তোচ সিংকাম, প্রসাত রিংলিং, ডংটু এবিয়া, তানু বেকার এবং এনগুরু দিরি। খবর পেয়েই পুলিশের তরফ থেকে ভারতীয় সেনাবাহিনীতে অপহরণের কথা জানানো হয়।

ভারতীয় সেনাবাহিনী অবিলম্বে হটলাইনে চীনের সেনাবাহিনীর কাছে ঘটনার কথা জানান। এর পরিপ্রেক্ষিতেই চীন জানিয়েছে, নিখোঁজ পাঁচ ব্যক্তিকে খুঁজে পেয়েছে চীনা সেনাবাহিনী। সমস্ত প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে শীঘ্রই তাদের ভারতে ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। উল্লেখ্য, ঘটনা প্রসঙ্গে চীনের বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্রের দাবি, চীনের ভূখণ্ড দখল করে ভারত অরুণাচল প্রদেশ গঠন করেছে। ওই এলাকাটি আসলে দক্ষিণ তিব্বতের অন্তর্গত।