স্কুল খুলেই বিপত্তি, অন্ধ্রপ্রদেশে ক’রোনা আক্রান্ত ২৭ পড়ুয়া

দেশে করোনা মহামারীতে সংক্রমিতের হার ক্রমশই ঊর্ধ্বমুখী। এরইমধ্যে আবার অভিভাবকদের অনুমতি নিয়ে ধাপে ধাপে স্কুল খোলার পথে এগোচ্ছে কেন্দ্র। মহামারীর মধ্যে স্কুল খোলার ফল হাতেনাতে পেল অন্ধপ্রদেশ। স্কুলে উপস্থিত হতে গিয়ে অন্ধ্রপ্রদেশের ভিজিয়ানগরম জেলার নবম ও দশম শ্রেণির ২৭ জন পড়ুয়া ইতিমধ্যেই করোনা আক্রান্ত হয়ে পড়েছে। ফলে, আতঙ্কে ভুগছে অন্ধ্রপ্রদেশের ভিজিয়ানগরম জেলা।

ঘটনা প্রসঙ্গে অন্ধপ্রদেশের রাজ্য শিক্ষা দফতরের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, ওই জেলার প্রায় ২৭ জন পড়ুয়ার শরীরে করণা রোগের উপসর্গ দেখা দিয়েছে। এরা প্রত্যেকেই ভিন্ন ভিন্ন গ্রামের বাসিন্দা। স্বাস্থ্য আধিকারিকদের ধারণা, পড়ুয়ারা সম্ভবত অন্য কোনো জায়গা থেকে সংক্রমিত হয়েছে। ভিজিয়ানগরম জেলার জেলাশাসক এম হরি জওহরলালের কড়া নির্দেশ, বিনা অনুমতিতে এখন ওই অঞ্চলে স্কুল খোলা যাবে না।

করোনা সংক্রমিত পড়ুয়ারা যেহেতু ভিন্ন ভিন্ন গ্রামের বাসিন্দা তাই রাজ্য সরকারের তরফ থেকে প্রতিটি গ্রামে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করানোর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। স্থানীয় এডুকেশন অফিসার জি বিজয়া লক্ষ্মী জানালেন, একটি গ্রামে পড়ুয়া এবং শিক্ষক সহ মোট ১০৮ জনের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করানো হয়েছিল। এদের মধ্যে ৯জন ছাত্র এবং ৯জন ছাত্রীর শরীরে করোনার সংক্রমণ ধরা পড়েছে।

অপর একটি স্কুলেও নয় জন পড়ুয়া করোনা আক্রান্ত হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এদের মধ্যে ছয়জনকে ইনস্টিটিউশনাল কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। অন্ধ্রপ্রদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী অল্লা কলি কৃষ্ণ শ্রীনিবাসের নির্দেশ অনুসারে, এই সকল পড়ুয়াদের মায়েদেরও করোনা টেস্ট করানো হবে। পাশাপাশি যে সকল পড়ুয়া হোম আইসোলেশনে রয়েছেন, তাদের প্রত্যেককে মেডিকেল কিট দেওয়ার ব্যবস্থা করবে রাজ্য সরকার। সেইসঙ্গে ওই এলাকায় মাস্ক এবং স্যানিটাইজারের ব্যবহারের প্রচার চালানো হচ্ছে।