ঘুমন্ত অবস্থায় মুখ দিয়ে ঢুকে যায় আস্ত সাপ, অস্ত্রোপচারে বেরিয়ে এল ৪ ফুট লম্বা সাপটি, ভিডিও ভাইরাল

সম্প্রতি এমন কিছু ভিডিও বা খবর সকলের সামনে উঠে আসে যা দেখলে রীতিমতো হতচকিত হয়ে যেতে হয়। প্রবল বর্ষার মধ্যে বাড়ির মধ্যে গোখরো সাপ ঢুকে যাওয়া বা শৌচালয় কুমির ঢুকে যাওয়ার খবর আমরা আগেও পেয়েছি। কিন্তু এবার যে ঘটনাটি ঘটলো তা দেখলে বা শুনলে বাকরুদ্ধ হয়ে যেতে হবে। সম্প্রতি এমনই একটি ভিডিও সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়েছে।

ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে যে, একজন নারীকে চেতনাহীন করে তার গলায় ক্লিপ নজেল ঢুকিয়ে প্রবেশ করানো হয়েছে। যখন সেটি আস্তে আস্তে তার গলা থেকে বার করে তুলে আনা হলো তখন দেখা গেল যে তারা গায়ে আটকে আছে একটি সাপ। সাপটিকে বার করে নিয়ে এসে পাশে ফাঁকা বালতিতে ফেলে রাখা হয়।সাপটিকে বের করে আনার পর সেটি দেখে একজন নার্স রীতিমত ভয় পেয়ে যায়।

সম্প্রতি জানা গেছে যে, রাশিয়ার কাস্পিয়ান সাগরের পাশে দাগেস্তান এলাকায় একটি গ্রামে বাড়ি ওই নারীর।ঘুমিয়ে থাকা অবস্থায় কোনো ভাবে তাই মুখ দিয়ে সাপটি তার শরীরের ভেতরে ঢুকে যায়। প্রথমেই কিছু না বোঝা গেলেও পরে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। সেখানে পরীক্ষা করে দেখা যায় যে, তার পেটের মধ্যে কিছু একটা রয়েছে।কিন্তু আল্ট্রাসনোগ্রাফিতে চিকিৎসা করা প্রথমে নিশ্চিত ছিলেন না যে পেটের মধ্যে থাকা বস্তুটি আসলে সাপ।

দুবাইয়ের একটি সংবাদ মাধ্যম আল বায়ান নিউজ এর টুইটার পেজ থেকে ভিডিওটি আপলোড করা হয়েছিল। মাত্র ৩০ সেকেন্ডের এই ভিডিওটি দাবানলের মত ভাইরাল হয়ে যায় বিশ্বজুড়ে। এই ঘটনাটি সামনে আসতেই রাশিয়ার ওই এলাকার সবাইকে বিশেষ করে শিশু এবং বয়স্কদের অতিরিক্ত সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। কোনভাবেই যেন কেউ ঘরের বাইরে না ঘুমায়, বা ঘরের মধ্যে ঘুমোলে-ও মশারি টাঙিয়ে ঘুমানোর জন্য পরামর্শ দিয়েছেন প্রশাসন।