রাজ্য সরকারকে নিয়ে লাগামহীন মন্তব্য দিলীপের, তোলপাড় রাজ্য জুড়ে

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের সমর্থনে ইতিমধ্যেই রাজ্য বিজেপির তরফ থেকে বিভিন্ন জায়গায় সভা মিছিল করা হচ্ছে। সংশোধনী আইন এর সমর্থনে বারবার রাজ্য বিজেপির তরফ থেকে রাজ্য সরকারকে তোপ দাগা হয়েছে।

এর আগে বনগাঁ থেকে শুরু করে রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় নাগরিকত্ব আইন সমর্থনে সভা মঞ্চ থেকে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ মুখ্যমন্ত্রীর নাম করে বিভিন্ন ভাবে তোপ দেগেছেন। এবারেও তার ব্যতিক্রম হল না।বুধবার ইংরেজি বর্ষবরণের দিন এ বার রাজ্য সরকারকে কান ধরে নাগরিকত্ব আইন মেনে নিতে হবে এমনটাই মন্তব্য করলেন দিলীপ ঘোষ।

যেহেতু রাজ্য জুড়ে নাগরিক কত সংশোধনী আইনের আন্দোলন চলছে তাই জাতীয় জনসংখ্যা রেজিস্ট্রারের কাজকর্ম স্থগিত রেখেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একই সঙ্গে রাজ্যে কোনও ভাবেই এই দুই নতুন আইন কার্যকর হতে দেওয়া যাবে না বলেই সরাসরি জানিয়েছেন মমতা, যদিও এনপিআর এবং নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন কোনও ভাবে এক নয় এবং এনবিআরের সঙ্গে এনআরসির কোনও যোগ নেই বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

তাই বুধবার ফেরা হাকিম রাজ্য সরকার এনপিআর ওসিএ লাগু হতে দেবেন না বলে জানিয়েছেন, তাই পাল্টা দিতে গিয়ে দিলীপ ঘোষ এ দিন বলেন ববি জেনে শুনে মিথ্যা বলছেন অথবা নিজের অজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন, শুধুমাত্র সরকারি প্রকল্পের সুবিধাভোগীদের চিহ্নিত করার জন্য এনপিআর করা হয়েছে।

এমনিতেই কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ কেরলের মুখ্যমন্ত্রীকে হুঁশিয়ারি দিয়ে এই আইন মানতে বাধ্য রাজ্য সরকার, এমন কি রাজ্য সরকারের এই আইন বদলানোর কোনও নেই বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন।