চিকিৎসার গাফিলতিতে শিশুমৃত্যুর অভিযোগ তুলে উত্তেজনা মকদুমপুর এলাকায়

69

মালদা,৩১ অক্টোবর : চিকিৎসার গাফিলতিতে শিশুমৃত্যুর অভিযোগ তুলে উত্তেজনা মালদা শহরের মকদুমপুর এলাকায় একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে। উত্তেজিত পরিজনেরা নার্সিংহোম ভাঙচুর করে এবং এক সেবিকাকে মারধোর করে বলে অভিযোগ। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে বিশাল পুলিশবাহিনী মোতায়েন করা হয়।পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃত শিশুর নাম, মাহিরা রহমান (এক মাস) বাবা মাসিদুর রহমান।মা শবনম খাতুন। বাড়ি ইংরেজবাজার থানার কমলাবাড়ী এলাকায়। পরিবারের লোকের অভিযোগ, বুধবার ওই শিশুটিকে নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়। তার পায়ে একটি ফুসকুড়ি হয়েছিল। সেখানে অস্ত্রোপচার করা হয়।বৃহস্পতিবার ভোর তিনটে নাগাদ, নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ বাড়ির লোককে মোবাইল মারফৎ খবর দেন ওই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এরপরে সকাল থেকে ক্ষোভে ফেটে পড়েন মৃত শিশুর পরিবারের লোকেরা। নার্সিংহোমের চিকিৎসককে ঘিরে বিক্ষোভ দেখান তারা।এরপর উত্তেজনা বারতে থাকে সেখানে।

এই রকম আপডেট পেতে লাইক করুন

উত্তেজিত পরিজনেরা নার্সিংহোমের এক সেবিকাকে রাস্তায় ফেলে ব্যাপক মারধোর করে বলে অভিযোগ।এরপর পুলিশের সামনে পরিজনেরা ব্যাপক ভাঙচুর করে বলে অভিযোগ।শিশু মৃত্যুর ঘটনায় যুক্ত অভিযুক্তদের কঠোর শাস্তির দাবিতে রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখায় মৃত শিশুর পরিবারের লোকেরা। পরিস্থিতি সামাল দিতে ইংরেজবাজার থানার বিশাল পুলিশবাহিনী মোতায়েন করা হয় নার্সিংহোম চত্বরে। সম্পূর্ণ সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখানো ও দোষীদের কঠোর শাস্তির দাবি তোলেন মৃত শিশু পরিবারের লোকেরা।মৃত শিশুর এক আত্মীয় আনিরুল সেখ জানিয়েছেন, নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষের গাফিলতিতে শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এক মাসের শিশুর পায়ে একটি ফুসকুড়ি হয়েছিল অস্ত্রপচার করে সে ফুসকুড়ি থেকে পুঁজ বের করে দেন চিকিৎসকরা। এরপর সুস্থ ছিল ওই শিশু। হঠাৎ নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ মোবাইল মারফত বাড়ির লোককে জানায় বৃহস্পতিবার ভোর তিনটে নাগাদ ওই শিশুর মৃত্যু হয়েছে। তিনি অভিযোগ করে বলেন নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষের গাফিলতিতেই ওই শিশুর মৃত্যু হয়। নার্সিংহোমের বিরুদ্ধে অভিযোগ করার কথাও জানান তিনি।নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ওই শিশুর শারীরিক অবস্থা খারাপ হয়ে যাওয়ায় তার মৃত্যু হয়েছে। শিশু মৃত্যুর ঘটনা তদন্তর আস্বাস দেন তারা। দীর্ঘক্ষন উত্তেজনার পর পুলিশ তদন্তের আশ্বাস দিলে বিক্ষোভ থেকে সরে দারায় পরিবারের লোকেরা।

এই রকম আপডেট পেতে লাইক করুন