পড়ুয়াদের ক’রা’নো হ’বে বিনামূল্যে পড়াশোনা! চা’লু “দিদির পাঠশালা”

করোনাকালে দেশজুড়ে ছাত্র-ছাত্রীদের পড়াশোনায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। স্কুল কলেজ বন্ধ। অনলাইনে পড়াশোনা চলছে। যদিও তাতে ছাত্র-ছাত্রীদের বেশ সমস্যার মুখেও পড়তে হচ্ছে। এরই মাঝে আবার উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় এবং স্থানীয় কাউন্সিলরের উদ্যোগে চালু হলো দিদির পাঠশালা। পঞ্চম থেকে দশম শ্রেণী পর্যন্ত পড়ুয়াদের পড়ানো হবে এখানে। তাও সম্পূর্ণ বিনামূল্যে।

বিভিন্ন বিষয়ের জন্য শিক্ষকেরা আলাদা আলাদাভাবে ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাস নেবেন দিদির পাঠশালায়। অশোকনগর পুরসভার ১৮ নম্বর ওয়ার্ডের প্রাক্তন কাউন্সিলর শিলা দের উদ্যোগেই চালু হয়েছে দিদির পাঠশালা। করোনাকালীন এই আর্থিক সঙ্কটের মুহূর্তে প্রাক্তন কাউন্সিলরের এমন উদ্যোগকে কুর্নিশ জানিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। করোনাকালে আর্থিক সংকটের কারণে ছাত্রছাত্রীদের পড়াশোনার ব্যাঘাত ঘটছে অনেক ক্ষেত্রেই। তার পরিপ্রেক্ষিতে এমন উদ্যোগ বেশ প্রভাব ফেলে দিয়েছে ছাত্র-ছাত্রী এবং অভিভাবকদের মনে।

অর্থের অভাবে যে সকল ছাত্র-ছাত্রীদের গৃহশিক্ষক ছাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে, তারা দিদির পাঠশালায় উপকৃত হবেন বলে মনে করা হচ্ছে। এলাকার ছাত্র-যুবদের সহযোগিতা নিয়েই চলছে এই কর্মসূচি। ১৮ নম্বর ওয়ার্ডের কমিউনিটি হলে বসছে এই পাঠশালা। ইতিমধ্যেই এই পাঠশালায় ৫০ জনের বেশি পড়ুয়া ভর্তি হয়েছে। আগামীদিনে সংখ্যাটা আরো বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে।

ছাত্রছাত্রীদের খাতা, পেন, পেন্সিলের বন্দোবস্ত করা হবে এই পাঠশালায়। এমন আশ্বাসও দিয়েছেন ওই ওয়ার্ডের প্রাক্তন কাউন্সিলর। এলাকার ছাত্র-যুব এমন উদ্যোগে সমর্থন জানিয়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন।