বৃষ্টি কি হ’বে রা’জ্যে? উ’ত্ত’র দিলো হাওয়া অফিস, জেনে নিন

বিগত কয়েকদিন ধরেই তীব্র দাবদাহে পুড়ছে বাংলা। আবহাওয়াজনিত অস্বস্তিতে পড়েছেন রাজ্যবাসী। তবুও বৃষ্টির দেখা নেই। যে কারণে অস্বস্তি বাড়ছে বৈ কমছে না। বিগত কয়েক দিন ধরেই এমনটা চলছে। বর্তমান পরিস্থিতিতে বৃহস্পতিবার অবশ্য কলকাতাসহ আশেপাশের অঞ্চলের তাপমাত্রা কিছুটা কমে ছিল। তবে বৃষ্টির দেখা নেই। আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের দাবি, কলকাতা এবং তার আশেপাশের অঞ্চলে বর্তমানে বৃষ্টিপাতের কোনো সম্ভাবনা নেই।

আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের তরফ থেকে জানানো হয়েছে শুক্রবার বিকালের পর অবশ্য দক্ষিণবঙ্গের বেশকিছু জেলায় ঘণ্টায় প্রায় ৪০-৫০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। তবে বৃষ্টি হবে না বলেই জানানো হয়েছে। চলতি মাসে তেমন কোনো আশ্বাসবাণী দিতে না পারলেও পরের মাসের জন্য কিন্তু আশার আলো দেখাচ্ছে হাওয়া অফিস।

আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, আগামী মাসের শুরুতেই মুর্শিদাবাদ, বাঁকুড়া , বীরভূম এবং পশ্চিম মেদিনীপুরে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। অপরপক্ষে হাওড়া ও হুগলি জেলায় কিন্তু তীব্র তাপদাহের সম্ভাবনা রয়েছে। শুক্রবার শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ১ ডিগ্রি বেশি। এ দিনের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৭.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। স্বাভাবিকের থেকে যা এক ডিগ্রি বেশি।

বাতাসের আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৮৭ শতাংশ রেকর্ড করা হয়েছে। প্রসঙ্গত এই বছর বর্ষা সঠিক সময় এবং স্বাভাবিকভাবেই ধরা দেবে বলে জানাচ্ছেন আবহাওয়া বিশেষজ্ঞরা। তাই এই বছর যেমন একদিকে রেকর্ড গরম পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে, অপরদিকে বর্ষাও স্বাভাবিক হওয়ার সম্ভাবনা থাকছে যাতে স্বস্তি পেতে পারে রাজ্যবাসী।