ম’দে’র বো’ত’ল কেন বেশিরভাগ সময় 750 ML হয়? জা’না আ’ছে কি?

যারা আসলে সুরা পানের থেকে নিজেদের দূরে রেখেছে, তাদের ক্ষেত্রে এটা কোনো সমস্যার কারণ হবে না। কিন্তু যারা সুরা প্রাণের ইচ্ছা রাখে তাদের এটা সত্যি চিন্তা যোগ্য একটি বিষয়। যদি লক্ষ্য করা যায় তাহলে দেখা যাবে সবচেয়ে যেটা বড় বোতল সেটা কিন্তু ৭৫০ মিলি লিটারের, কিন্তু সেটার কারণ কি? বাজারে যে সমস্ত দামী মদ রয়েছে তার সব বোতল এই মাপের।

সম্প্রতি একটি ইউটিউব চ্যানেলে এই বিষয় নিয়ে কথা বলা হয়েছে, আসলে অতীতে মদ রাখা হত ব্যারেলে। অষ্টাদশ শতকের কথা যদি বলা যায় তাহলে দেখা যাবে তখনকার মদ প্রস্তুত কারী সংস্থা গবেষোণা করে দেখেছে মদ বিক্রির জন্য কাচের বোতল সব থেকে ভালো। আগের বোতল তৈরী করার জন্য গ্লাস ব্লোয়িং প্রযুক্তিকে ব্যবহার করা হত।

এর মাধ্যমে ২০০০ ডিগ্রী তাপমাত্রায় ফুটতে থাকা কাচে পাইপ ডোবানো হত। সেই কারণে আসলে ধাতব পাইপের চাপে বোতলের সাইজ বেড়ে যেত। কিন্তু সেই বোতল বড় হলেও ৭৫০ মিলি লিটারের বেশী আর হয় না। সেই কথা মাথায় রেখেই বড় মদের বোতল ৭৫০ মিলি লিটারের রাখা হত। যা সেই সব সংস্থা সেটা মেনেই ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে।

আরো পড়ুন: যুবরাজ সিংয়ের বাড়িতে অ’না’য়া’সে থাকতে পারবেন আপনিও, কি সুবিধা মি’ল’বে?

এর সাথে আরও যুক্তি রয়েছে আসলে ৭৫০ মিলি লিটার মদের গ্যালন বা পেগের হিসেবে আদর্শ একটি মাপ। তাই পরবর্তীকালে ১৮০ এম এল ও ৩৭৫ এম এল মাত্রা সর্ব সম্মতি পেয়েছে। সবচেয়ে ৫০ এম এল, তারপর ৯০ এম এল,১৮০ এম এল, এরপর ৩৭৫ এম এল। ছোট বোতল তো পকেটে ঢুকে যায়।ছোট বোতল খুবই কাজের, যেখানে সেখানে পকেটে রেখে ব্যাগে ক্যারি করা যায়। অনেকে আবার সেই পরিমাণেই খুশি, এতে পয়সাও কম লাগল আর পরিমাণ হিসেবেও খাওয়া গেল।