ফের কি হবে লকডাউন? ক’রো’নার নতুন সংক্রমণ নিয়ে বেশ চিন্তিত বিশেষজ্ঞরা

দেশে দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়াচ্ছে করোনার ভাইরাসের নতুন স্ট্রেইন N440K! বিশিষ্ট সূত্রে খবর, করোনার এই নতুন রূপটিদেশের দক্ষিণের রাজ্যগুলিতে দ্রুত প্রভাব বিস্তার করছে। হায়দরাবাদ-ভিত্তিক বৈজ্ঞানিক ও শিল্প গবেষণা কাউন্সিলের (CSIR) সেন্টার ফর সেলুলার অ্যান্ড মলিকুলার বায়োলজির (CCMB) বিজ্ঞানীরা তাদের করোনা সংক্রান্ত সমীক্ষার পরেই কার্যত এমন চাঞ্চল্যকর তথ্য জানিয়েছেন।

বিজ্ঞানীরা জানাচ্ছেন, দেশের বেশ কয়েকটি রাজ্যে খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে করোনার এই নতুন রূপ। বিষয়টিকে এখনই গুরুত্ব দিয়ে বিবেচনা করার প্রয়োজনীয়তা রয়েছে বলে জানাচ্ছেন তারা। সংশ্লিষ্ট সংস্থার বিজ্ঞানীরা দেশে করোনার ভাইরাসের বিস্তার এবং এর জিনোমের গবেষণা ও বিশ্লেষণের উপর গবেষণা চালাচ্ছেন। তারা জানিয়েছেন, করোনার যে স্ট্রেইনগুলি বিশ্বজুড়ে দাপটের সঙ্গে বিরাজ করছে, ভারতে তারা খুবই কম প্রভাব ফেলেছে।

CCMB এর পরিচালক রাকেশ মিশ্র জানালেন, দেশের দক্ষিণের রাজ্যগুলিতে করোনার ভাইরাসের N440K রূপটি দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে। তাই এখন আরো সতর্ক হতে হবে। সঠিক সময়ে ভাইরাসের চিহ্নিতকরণের মাধ্যমেই একমাত্র এই ভাইরাসের মোকাবিলা করা সম্ভব। করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন নিতেই হবে। তার সঙ্গে অবশ্যই মাস্কধারণ করা, হাত ধোয়া এবং শারীরিক দূরত্ব মেনে চলা আবশ্যক।

প্রসঙ্গত শনিবার কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফ থেকে প্রকাশিত স্বাস্থ্য বুলেটিনে জানানো হয়েছে, দেশে এখনো পর্যন্ত প্রায় ৩৮লক্ষ ১১ হাজার ৬৭০ জনকে করোনার টিকা দেওয়া হয়েছে। এদের মধ্যে ৭২ লক্ষ ২ হাজার ৩৫৩ জন স্বাস্থ্য কর্মী রয়েছেন। এদিকে কেরল, মহারাষ্ট্র, পঞ্জাব, ছত্তিশগড় এবং মধ্য প্রদেশে কোভিড -১৯ এর নতুন কেসের সংখ্যাও বেড়েছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। অতএব এখনই করোনার প্রকোপ থেকে নিশ্চিন্ত হওয়া যাচ্ছে না।