মদন মিত্রের বু’ক প’কে’টে কি আছে? হাত লাগাতেই হু’ঙ্কা’র “মাই নেম ইজ মদন মিত্র”

আজ রাজ্যজুড়ে পঞ্চম দফার ভোট শুরু হয়েছে। সকাল থেকেই পরিস্থিতি উত্তাল। আজ কামারহাটির তৃণমূল প্রার্থী মদন মিত্রকে নিয়ে ফের একবার ‌ উত্তপ্ত হয়ে উঠল রাজ্য রাজনীতি। আড়িয়াদহের বুথে তাকে ঢুকতে দেয়নি কেন্দ্রীয় বাহিনী। যে কারণে কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে রীতিমতো ক্ষেপে উঠলেন তৃণমূল প্রার্থী। মদন মিত্রের অভিযোগ, বচসা চলাকালীন কেন্দ্রীয় বাহিনীর সদস্যরা তার বুকপকেটে হাত দেয়!

এতে মদন মিত্র বেজায় চটে যান। যে কারণে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে হুঁশিয়ারি দিয়ে মদন মিত্র বলেন, ‘মাই নেম ইজ মদন মিত্র। কাকে ভয় দেখাচ্ছো, মদন মিত্রকে? পকেট সার্চ করছে!’ এর পরেই পকেট থেকে ঠাকুরের ছবি বের করে তা সাংবাদিকদের দেখান তিনি। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে সাময়িকভাবে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে আড়িয়াদহ ভোট কেন্দ্র।

এদিন সকাল থেকেই এলাকা পরিদর্শনে বেরিয়ে পড়েন মদন মিত্র। সকাল থেকে তিনি ছিলেন খোসমেজাজে। এদিন সকাল সকাল দক্ষিণেশ্বরে কালী মন্দিরে পুজো করেন তিনি। হাতে পুজোর কাপড়, কপালে বজরংবলির তিলক, পরনে সাদা পাঞ্জাবি, চোখে সানগ্লাস, এদিন এই রূপেই দেখা গেল তাকে। তবে ছন্দ পতন ঘটল দুপুরের দিকে। কেন্দ্রীয় বাহিনীর সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়লেন তিনি।

সাংবাদিকদের এদিন তিনি বলেন, দক্ষিণেশ্বরের কালী মায়ের কাছে পুজো দিয়ে তিনি বরাবর মানসিক শান্তি পান। পাশাপাশি বিজেপিকে উদ্দেশ্য করে তার মন্তব্য, ‘রাতের বেলা ২৯ নম্বরে চারটে বোমা মারল। বোমা মারলে বলে মার। তোদের হাতে বোমের ডালা, আমাদের হাতে ঠাকুরের ডালা। BJP বোম মারতে এলে বলব, সবাই সরে দাঁড়ান, এখন BJP বোম মারবে।’