ফের যুদ্ধ শুরু আজারবাইজান ও আর্মেনিয়ার মধ্যে, মৃত ৩৬৭ জন সেনা!

মাত্র কিছুক্ষণের ধৈর্য্য, তার পরেই ফের শুরু লড়াই। রাশিয়ার মধ্যস্ততায় সংঘর্ষবিরতি চুক্তি মেনে নিলেও তার কিছুক্ষণ পরেই সেটা ভেঙ্গে যুদ্ধ শুরু দুই দেশের মধ্যে। রুশের এই মধ্যস্ততা যে একেবারেই টিকবে না সেটা জানিয়েছিল বিশেষজ্ঞরা। আসলে যেটা কাগজে স্বাক্ষরিত হয়েছে সেটা মনের দিক থেকে মেনে নেয় নি কোনো দেশই। এবার তাই আজারবেইজান ও আর্মেনিয়ার মধ্যে ফের শুরু লড়াই। আসলে রিপাবলিক অফ আর্টসাক’-এর প্রেসিডেন্ট আরাইক হারুতুনিয়ানের মুখপাত্র ভাহরাম ফগসিয়ান তিনি জানায়, প্রথমে আর্মেনিয়ার ওপরে আজার বেইজানের সেনারা গোলাবর্ষন করে।

এই গোলাগুলি বর্ষণার আগে দুটি শহরে মিসাইল হামলা চালিয়েছে তারা। আর তার ফলেই তাদের দেশের ৩৬৭ জন সেনা ও ২৭ জন সাধারণ মানুষ প্রাণ হারিয়েছে। কিন্তু এই কথা কোনোভাবেই মেনে নিতে রাজি নয় আজারবেইজান, তারাও আর্মেনিয়ার ঘাড়ে দোষ চাপিয়ে বলেন, তাদের প্রথম হামলার জবাব তারা বাধ্য হয়েই দিয়েছে।

আসলে রাশিয়ার ১০ ঘন্টার বৈঠকের কারণেই দুইদেশ সবটাই মেনে নিতে রাজি হয়েছিল। আর তার ফলেই রাশিয়ার বিদেশমন্ত্রী সের্গেই লাভরভ খুশি মনেই এই কথা জানিয়েছিল। গত ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে এই লড়াই শুরু হয়েছে দুই দেশের মধ্যে, সেটা রুখতেই রাশিয়ার এই মধ্যস্ততা। আজারবাইজানের বিদেশমন্ত্রী জেহুন বায়রামভ ও আর্মেনিয়ার বিদেশমন্ত্রী জোহরাব মান্টসাকানইয়ান দু জনকে নিয়েই এই বৈঠক করে রাশিয়ার বিদেশমন্ত্রী সের্গেই লাভরভ কিন্তু কাগজে সেই চুক্তি স্বাক্ষরিত হলেও আসল লাভ কিছুই হয় নি।