দীর্ঘ ৫৫ বছর অপেক্ষার অবসান! এবার বাংলাদেশের সাথে সরাসরি রেলপথে উত্তরবঙ্গ

এবার উত্তরবঙ্গ বাসীদের জন্য এক দারুণ খবর। গত কয়েক মাস আগেই দক্ষিণবঙ্গ থেকে বাংলাদেশে যাওয়ার নতুন ট্রেন চালু করা হয়েছিল। এবার সেই সুযোগ পেতে চলেছে উত্তরবঙ্গ, দুই দেশের সরকার এবার এই নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। মৈত্রী এক্সপ্রেস এর মতই বাংলাদেশের নীলফামারী জেলার চিলাহাটি পর্যন্ত, উত্তরবঙ্গের হলদিবাড়ি হয়ে ট্রেন চালু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যেই বাংলাদেশের তরফ থেকে এসে ভারতীয় রেল কর্তাদের সঙ্গে কথাবার্তা সেরে নেওয়ার পরিকল্পনা হয়ে গেছে, যা আগামী ১০ ই ফেব্রুয়ারি হতে চলেছে। গত ১৭ ডিসেম্বর এই রুটেই একটি মালগাড়ি এসেছিল বাংলাদেশ থেকে। কলকাতার মৈত্রী এক্সপ্রেস গেদে হয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে, কিন্তু এবার সেই সুযোগ উত্তরবঙ্গকেও দেওয়া হবে।

এখন যদি কলকাতা থেকে সেই ট্রেন রওনা দেয় তাহলে, ট্রেনের গতিপথ হবে, কলকাতা থেকে দর্শনা সীমান্ত হয়ে বাংলাদেশের ঈশ্বরদী-পার্বতীপুর-ডোমার-চিলাহাটি, তারপর হলদিবাড়ি হয়ে শিলিগুড়ি খুব দ্রুত পৌঁছানো সম্ভব হবে। এতে দক্ষিণবঙ্গের উত্তরবঙ্গের দূরত্ব তুলনামূলক অনেক কম হয়ে যাবে। গত ৫৫ বছরের উপরে এই রেল পথ বন্ধ ছিল দুই দেশের মধ্যে, কিন্তু দুই দেশের প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক এর পরেই ফের চালু করা হলো রেলপথ।

একেবারে ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধ চলাকালীন বন্ধ হয়ে গিয়েছিল রেলপথ, সেই থেকেই অনেক চেষ্টা চালালেও পুনরায় চালু করা সম্ভব হয়নি ভারত বাংলাদেশ রেলপথ। কিন্তু দীর্ঘ ৫৫ বছর পর ফের দুই দেশের মধ্যে চালু করা হলো এই রেল পথ, ইতিমধ্যেই উত্তর-পূর্ব সীমান্তে রেল কর্তারা জানিয়েছেন তারা যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচলের জন্য দারুন ভাবে প্রস্তুত। চলতি বছরের আগামী মার্চ মাসেই এই রেলপথের চালু হবে বলে জানা গেছে। আর তার আগেই সমস্ত কিছু খতিয়ে দেখার জন্য বাংলাদেশের প্রতিনিধিরা আসছে উত্তরবঙ্গে।