এবার তারক মেহেতার সাথে সবরকম সম্পর্ক ছিন্ন করতে চলেছেন “দয়াবেন” খ্যাত দিশা

তারাক মেহেতাকা উলটা চশমা ধারাবাহিকটি বিনোদনের দিক থেকে সবথেকে বেশি এগিয়ে। ১০ বছরের উপরে হয়ে গেছে এই ধারাবাহিকটি চলছে। ধারাবাহিকটি সকল দর্শকদের কাছে ভীষণ জনপ্রিয় সেই জন্যেই এত বছর ধরে এই সিরিয়ালটি চলে আসছে। তবে যারা এই সিরিয়াল দেখে, ভীষণ ভালোবাসেন তাদের কাছে একটি দুঃসংবাদ। জানা গেছে যে এই ধারাবাহিকটি থেকে দিশা বাকানি বেরিয়ে যাচ্ছেন। এই ধারাবাহিকটিতে দিশাকে দেখা গেছে দয়াবেনের চরিত্রে।

স্বাভাবিকভাবেই দর্শকদের কাছে খুব প্রিয় একটি চরিত্র তবে এই প্রিয় চরিত্রটি বেরিয়ে যাচ্ছে এই ধারাবাহিকটি থেকে সেটা শোনার পর যথেষ্ট জল্পনা শুরু হয়েছে দর্শকদের মনে। এই খবরটি যখন প্রকাশ্যে এসেছে তারপর এই ধারাবাহিকটিকে যারা পছন্দ করেন তাদের মন ভেঙে গিয়েছে। দয়াবেন ধারাবাহিকটিতে এমন একটি চরিত্রে অভিনয় করছেন যেটি সকল দর্শকদের আনন্দ দিয়ে থাকেন।

এরকমভাবে এই চরিত্রটি বেরিয়ে যাওয়া মানে স্বাভাবিকভাবেই মন খারাপের ব্যাপার। তবে, তিনি যে এই ধারাবাহিকটি থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন সেটা অনেকেই বিশ্বাস করেন নি। কিন্তু, সমস্ত খবর প্রকাশে আসছে তারপর বোঝাই যাচ্ছে যে হ্যাঁ হয়তো সত্যিই তিনি এই ধারাবাহিকটি থেকে বেরিয়ে যাচ্ছে। বেশ কিছু সময় তাকে এই ধারাবাহিকে দেখা যায়নি, তিনি মা হয়েছেন বলেই ছুটি নিয়েছিল এবং যার জন্যেই শুটিং তিনি বন্ধ রেখেছেন।

সবার একটি মনে প্রশ্ন থেকে গিয়েছিল যে দয়াবান কে কবে দেখা যাবে। যার জন্যই এই ধারাবাহিকের পরিবারটিকে কি প্রশ্ন করা হয়েছিল এবং যার ফলে উত্তর পাওয়া গেছে যে, তিনি আর ফিরবেন না। একটি প্রতিবেদন অনুসারে জানা গিয়েছে যে, যখন তিনি মাতৃত্ব কালের জন্য ছুটি নিয়েছিলেন তার পরেই এই ধারাবাহিকের প্রযোজক সংস্থার সাথে তার আলোচনা হয়েছিল কবে তিনি ফিরবেন সে বিষয়েও আলোচনা হয়। কিন্তু টাকাপয়সা জনিত কিছু ঝামেলার কারনেই তিনি এই ধারাবাহিকটি ছেড়ে দেবেন বলেই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। যদিও এই বিষয়টি নিয়ে ওই ধারাবাহিকের পরিচালক এবং প্রযোজক কোন মন্তব্য করেনি সুতরাং এখনও একটি প্রশ্ন রয়ে গেছে যে দিশা ফিরবেন কিনা।