বাড়ির ছাদ থেকে ইনকাম হবে প্রচুর, থাকতে হবে একটু বুদ্ধি, ব্যবসা শুরু করুন আজই

করোনাকালে অনেকেই চাকরি হারিয়েছেন। চাকরি খুইয়ে অনেকেই যেমন নতুন চাকরির অন্বেষণ করছেন, অনেকেই আবার নতুন ব্যবসার দিকে ঝুঁকেছেন। এমতাবস্থায় সম্পূর্ণভাবে বাড়িতে বসেই যদি কোনো ব্যবসা করতে চান তাহলে সেই সুযোগ দিচ্ছে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। একেবারে বাড়ির মধ্যেই বাড়ির খোলা ছাদ ব্যবহার করে এই ব্যবসা শুরু করা যেতে পারে। শহর হোক কিংবা প্রত্যন্ত গ্রাম, বাড়িতে খোলা ছাদ থাকলেই এই লাভজনক ব্যবসা করা যেতে পারে।

এই ব্যবসা করার মূলধন ব্যাংক থেকেই মিলতে পারে। টেলিকম শিল্প, কৃষি শিল্প, রিয়েল এস্টেটের ব্যবসার জন্য এই মূলধন পেতে পারেন। এরমধ্যে বাড়ির ছাদে সোলার প্লান্ট বসিয়েও বেশ মোটা টাকা ইনকাম করা যেতে পারে। ছাদে মোটামুটি ৮ বর্গমিটারের একটা জায়গা থাকলেই এক কিলোওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যেতে পারে। ন্যূনতম ৩০ কিলোওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে গেলে ২৪০ বর্গমিটার জায়গা পাওয়া যেতে পারে।

এছাড়াও ছাদে সবজি চাষ এখন ক্রমশই বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। জমি জায়গার কোনো প্রয়োজন নেই। বাড়ির ছাদেই গ্রীন হাউজ তৈরি করে পলিব্যাগের মধ্যেই সবজি চাষ করা যাবে। জৈব সার, কীটনাশক ব্যবহার করেই উন্নত গুনমানসম্পন্ন সবজি ফলানো সম্ভব। তবে এর জন্য অবশ্যই তাপমাত্রা এবং আর্দ্রতা নিয়ন্ত্রণ করতে বেশ কিছু সরঞ্জাম ইনস্টল করতে হবে।

ছাদে উৎপাদিত সবজি নিজেই বাজারে বিক্রি করতে পারেন অথবা ডেলিভারি বয় রাখতে পারেন। আবার খালি ছাদে মোবাইল টাওয়ার বসিয়েও কিন্তু বেশ লাভ করা যায়। স্থানীয় পৌর কর্পোরেশনের অনুমতি নিয়ে মোবাইল টাওয়ার সংস্থাগুলিকে টাওয়ার বসানোর বরাত দিলে মাসের শেষে সংস্থার তরফ থেকে মোটা টাকা আয় করতে পারবেন।