২৬ জানুয়ারি ট্রাক্টর মিছিল নিয়ে কোনো বাক্য খরচ করলো না সুপ্রিম কোর্ট, চাপ বাড়লো কেন্দ্রের

বর্তমানে কৃষক বিদ্রোহ নিয়ে অনেকটাই চাপের মধ্যে কেন্দ্র। তার সাথেই এবার সুপ্রিম কোর্টের তরফ থেকেও ধাক্কা খেলো কেন্দ্র। আগামী প্রজাতন্ত্র দিবস উপলক্ষে কৃষকদের যে ট্রাক্টর মিছিল বের হওয়ার কথা ছিল সেই নিয়েই এক বড় ধাক্কা কেন্দ্রের। প্রজাতন্ত্র দিবসে কৃষকদের ট্রাক্টর মিছিল নিয়ে কোনো নির্দেশিকা দিলোনা সুপ্রিম কোর্ট। মোটকথা আগামী 26 শে জানুয়ারি প্রজাতন্ত্র দিবস উপলক্ষে জাতীয় স্বার্থ রক্ষার তাগিদে দিল্লি পুলিশ এই কৃষকদের ট্রাক্টর মিছিল বন্ধ করার স্থগিতাদেশ চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। কিন্তু ঘটনা ঘটলো একেবারে উল্টো, সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ আইন শৃঙ্খলা ও শান্তি বজায় রাখার দায়িত্ব দিল দিল্লি পুলিশের কাছেই।

আজ সোমবার শুনানিতে আদালত জানায়,মোটকথা সমস্ত দিক থেকে শান্তি বজায় রাখার দায়িত্ব দিল্লি পুলিশের। মোটকথা দিল্লিতে কারো ঢোকার অনুমতি পাবে আর কারা ঢোকার অনুমতি পাবে না এই নিয়ে দায়িত্ব নেবে দিল্লি পুলিশ। মোটকথা আইন-শৃঙ্খলা বজায় রাখার বিষয়টি সমস্তটাই দেখবে দিল্লি পুলিশ, এই বিষয়ে প্রথমেই আদালত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারে না। আগামী বুধবার এই শুনানির হবে বলে জানানো হয়েছে, এখন এই কারণেই কেন্দ্রের কাছে এক বড় ধাক্কা। কিভাবে এই ট্রাক্টর মিছিল আটকানো যায় সেটা ভাবতে হবে কেন্দ্রকেই। স্বাভাবিকভাবেই কৃষকদের উদ্দেশ্যে কাঁদানে গ্যাস লাঠিচার্জ করাটা কেন্দ্রের আদর্শকেই ক্ষতি করবে সেটা স্পষ্ট।

মোটকথা কেন্দ্র মনে করছে এই কৃষক মিছিল যেটা ট্রাক্টর নিয়ে, সেটা দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করবে এবং আন্তর্জাতিক মহলে একরকম বাজে দাগ কাটবে।তবে কৃষক সংগঠনের তরফ থেকে জানানো হয়েছে তাদের এই ট্রাক্টর মিছিল কোনভাবেই প্রজাতন্ত্র দিবসের মূল অনুষ্ঠানে বাধা হয়ে দাঁড়াবে না।