ভারতের একমাত্র মন্দির যে’খা’নে প্রসাদ হি’সে’বে দেওয়া হ’য় সোনা! জানতে হ’লে পড়ুন প্রতিবেদন

ভারতে নানা স্থানে ছড়িয়ে রয়েছে নানান দেবদেবীর মন্দির। আর সেইসব দেবদেবীর দর্শনের জন্য ভক্তরা মন্দিরগুলিতে ভিড় করেন। আর মন্দির দর্শন সূত্রে প্রসাদ হিসেবে কখনও মেলে মিষ্টি বা ফল, কখনো বা খিচুড়ি ভোগ। কিন্তু প্রসাদ হিসেবে সোনা দেওয়া হয়, এমন কথা কি জানেন?

महालक्ष्मी मंदिर, रतलाम

এমন প্রথার চল রয়েছে মধ্যপ্রদেশের রতলমে মহালক্ষ্মী মন্দিরে। সোনা রূপো ও বিভিন্ন সম্পদে এই মন্দির পরিপূর্ণ থাকে। প্রসাদ হিসেবেই ভক্তদের হাতে তুলে দেওয়া হয় সোনা। আর প্রত্যেক বছর দীপাবলীর সময় ভক্তদের একটি করে সোনা বা রুপোর গয়নাও দেওয়া হয়।

महालक्ष्मी मंदिर, रतलाम

এই সোনা প্রসাদ হিসেবে পেতেই দূর দূরান্তের ভক্তরা মহালক্ষ্মী মন্দিরে ভিড় জমায়। এক্ষেত্রে যাতায়াতের খরচ যদিও সোনা প্রসাদের থেকে বেশি হয়। কিন্তু লক্ষ্মী ভান্ডারের গয়না পেতেই ভক্তরা ছুটে যান মন্দিরে।

महालक्ष्मी मंदिर, रतलाम

কিন্তু এই গয়না কোনও ভক্ত ব্যবহারও করেন না। কারণ এই গহনাতে শ্রী বৃদ্ধি হয়,গৃহস্থর ঐশ্চর্য্য বৃদ্ধি হয়, তাই ভক্তরা এই গয়নাকে মা লক্ষ্মীর আশীর্বাদ মনে করে আলমারি বা সিন্দুকের লকারে রেখে দেন।