বিশ্বের সবথেকে সুন্দরী ও হ’ট চো’র! জানুন এই নারীর কী’র্তি

একসময় তিনি ছিলেন বিখ্যাত চোর। অপরাধের দায়ে জেল খাটতে হয়েছিল তাকে। আপাতত তাকেই দেওয়া হয়েছে সেক্সি থিফ অফ দা ওয়ার্ল্ড এর তকমা।২১ বছর বয়সী স্টেফানি বোদা চুরির দায়ে গ্রেপ্তার হয়েছিলেন ২০১৪ সালে। তার বিরুদ্ধে ছিল ১১৪ টি অপরাধের কেস। প্রায় ৪২ টি বাড়িতে চুরির অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।

৯০ দিনের জেল খাটতে হয়েছিল তাকে। বেশ কয়েকটি ম্যাগাজিনে মডেলিং এর কাজ শুরু করেছিলেন তিনি। খুব সম্ভবত পুলিশের রেকর্ড লুকিয়ে এই কাজ শুরু করেছিলেন এই চোর। কিন্তু তার মধ্যেই পুরনো চুরির খবর একবার ভাইরাল হয়ে যায়। তারপর এই ছবিগুলি রীতিমতো সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে সকলের সামনে পৌঁছে যায়।

সেই সূত্র ধরে অনেকেই তাকে সেক্সি থিফ অফ দা ওয়ার্ল্ড এর তকমা দিয়েছেন। তবে এর জন্য অবশ্যই মূল্য চোকাতে হয়েছিল তাকে। পুলিশ রেকর্ডের সামনে আসার ফলে ম্যাগাজিনের কাজ বন্ধ হয়ে যায় তার। যদিও ভাইরাল ছবির হাত ধরেই জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন কানাডার বাসিন্দা এই মডেল। এরপর বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক ম্যাগাজিন মডেলিং এর অফার পেয়েছিলেন তিনি। যদিও সোশ্যাল সাইট থেকে তার ছবিগুলো সরিয়ে ফেলার জন্য পুলিশকে বারবার অনুরোধ করেছিলেন তিতিবিরক্ত স্টেফানি বোদা।