ম’দ খেয়ে উ’দ্দা’ম নাচ বরের! কনে বি’য়ে করে নিলেন অন্য ছেলেকে

সম্প্রতি এক বিয়েবাড়িতে দেড় শতাধিক বরযাত্রী গান ও ডিজে-র তালে নাচতে শুরু করেন। তাদের সঙ্গে যোগ দেন বর। রাত 9টায় তাদের নাচ শুরু হয় কিন্তু, রাত 1 টাতেও তাদের নাচ থামে না। কনের বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেওয়ার সময় রাস্তাতেই তাঁরা মদের নেশায় আচ্ছন্ন হয়ে পড়েন।

এমনকি ডিজের তালে নেচে এবং মদ্যপান করে বরের অবস্থা কাহিল হয়ে পড়ে। অন্যদিকে রাত 2টো পর্যন্ত অপেক্ষা করে, কনে বিয়ে করে নেন অন্য একজন যুবককে।

বরযাত্রীরা যখন রাত 2টোর সময় বর সমেত কনের বাড়িতে পৌঁছান, তখন তাদের মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ে। তাঁরা দেখেন যে, ইতিমধ্যেই পাত্রীর বিয়ে হয়ে গিয়েছে অন্য আরেকজনের সঙ্গে।

আরো পড়ুন: আগামী সপ্তাহেই ফলপ্রকাশ হ’তে পারে মাধ্যমিকের, জেনে নিন বি’শ’দে

এরপরই ওই বর বাধ্য হয়েই ফিরে আসেন। যদিও, এর পরিপ্রেক্ষিতে গত সোমবার ওই পাত্র ও তাঁর আত্মীয়রা রাজগড় থানায় যান। মূলত, বিয়ে করতে এসে দীর্ঘক্ষণ বন্ধুদের সাথে নাচ এবং বরের বন্ধুদের মত্ত অবস্থায় দেখে অন্য এক যুবককে বিয়ে করলেন কনে। এই ঘটনাই রীতিমত সাড়া ফেলে দিয়েছে সর্বত্র।

জানা গিয়েছে, রাজস্থানের চুরু জেলায়, এক বর বিয়ে করতে যাওয়ার সময়ে তাঁর বন্ধুদের সাথে ডিজে বাজিয়ে উত্তালভাবে নাচতে থাকেন। এমতাবস্থায়, মিছিলে আসা বর ও তাঁর বন্ধুদের দেখে ক্ষুব্ধ হন কনে এবং পরিবারের লোকজনেরা।

এরপর পাত্রীর পরিবার ওই পাত্রীকে অন্য একটি ছেলের সাথে বিয়ে করানোর সিদ্ধান্ত নেন এবং বিয়ে সম্পন্ন হয় তাঁদের। বিয়েবাড়িতে পৌঁছে দেখেন, কনের সঙ্গে বিয়ে হয়ে গিয়েছে অন্য এক যুবকের। বরযাত্রীরাও সেই সময় মদ্যপ অবস্থায় ছিল।

আরো পড়ুন: তার ছাড়াই এবার প্রতি বাড়িতে পৌঁছে যা’বে ইলেক্ট্রিক! এ’লো ন’য়া প্রযুক্তি

এরপরই তাদের মধ্যে বেঁধে যায় বচসা। বরের বাড়ির পক্ষ থেকে পুলিশের কাছে গিয়ে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। মূলত ঘটনাটি ঘটেছে রাজস্থানের চুরু জেলার রাজগড় তহসিলের চেলানা গ্রামে।

গত 15 মে, হরিয়াণার সিওয়ানির 10 নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা অনিলের ছেলে মহাবীর জাট বরযাত্রীদের সাথে নিয়ে মিছিলের মাধ্যমে রাজগড়ের চেলানায় বিয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। রাস্তায় তাঁরা এমন কাণ্ড ঘটায় যে, কনে বিয়ে করে নেন অন্য যুবককে।