ভু’য়ো ভ্যা’ক’সি’ন নিয়ে পুরসভাকে দুষলেন খো’দ মুখ্যমন্ত্রী

কসবার ভুয়ো আইএএস দেবাঞ্জন দেব প্রসঙ্গে এবার মুখ খুললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দেবাঞ্জনের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে আশ্বাস দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন, ভুয়ো ভ্যাক্সিনেশন কাণ্ডের সঙ্গে যে জড়িত, সে সন্ত্রাসবাদীদের থেকেও মারাত্মক। রাজ্যের সাধারণ মানুষের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলেছে দেবাঞ্জন। পাশাপাশি তার বক্তব্য, পুরসভা কখনোই এই ঘটনার দায় এড়াতে পারে না।

মুখ্যমন্ত্রী এদিন নবান্ন থেকে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন যে ভুয়ো ভ্যাকসিন কাণ্ডে যারা জড়িত, তাদের কাউকে ছাড়া হবে না। পুরসভার কেউ যদি এর সঙ্গে জড়িত থাকেন, তাকেও রেয়াত করা হবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন, দেবাঞ্জনের মত মানুষেরা ঠকবাজ। তারা সকলের সঙ্গে ছবি তুলে রাখে। এরা মানুষ নয়, অমানুষের পর্যায়েও পড়ে না। বারবার এদের নাম নিয়ে এদের জনপ্রিয় করার দরকার নেই বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

মুখ্যমন্ত্রী আশ্বাস দিয়ে জানিয়েছেন, যারা ভুয়ো ভ্যাকসিন নিয়েছেন, তাদের সকলের স্বাস্থ্যের উপর নজর রাখা হচ্ছে। সরকারের তরফ থেকেই তাদের ভ্যাকসিন দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রী এদিন প্রশ্ন তোলেন, দেবাঞ্জনের মতো মানুষদের এত বড় সাহস হয় কি করে? এই ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের কাউকেই ছাড়া হবে না বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

রবিবার রাতে দেবাঞ্জনকে নিয়ে তার মাদুরদহর বাড়িতে প্রায় আড়াই ঘণ্টা তল্লাশি চালিয়েছেন লালবাজার থানার পুলিশ আধিকারিকরা। দেবাঞ্জনের বাড়ি থেকে বেশ কিছু নথি, স্ট্যাম্প বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। ৩ টি ডেবিট কার্ড ও ব্যাঙ্কের পাসবুকও পাওয়া গিয়েছে তার বাড়ি থেকে। দেবাঞ্জনের বাবা করোনায় আক্রান্ত বলে জানা গিয়েছে। এদিকে, কসবা কাণ্ড নিয়ে পুলিশ কমিশনার সৌমেন মিত্রের সঙ্গে বেশ কয়েকবার ফোনে কথা বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী। দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।