ব’ড়ো সিদ্ধান্ত, মেয়ের বি’য়ে’র জন্য ৫১ হাজার টা’কা দি’চ্ছে মোদি সরকার

সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মেয়েদের উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে অনুপ্রাণিত করার জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে চালু করা হয়েছে PM Shadi Shagun Yojna। এই যোজনার আওতায় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মহিলাদের বিবাহের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে ৫১ হাজার টাকার অর্থ সাহায্য পাওয়া যায়। সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মুসলিম কন্যাদের বিবাহের জন্য চালু করা হয়েছে এই ব্যবস্থা।

সংখ্যালঘু মুসলিম সম্প্রদায়ের মহিলারা যাতে বিবাহের আগে স্কুলের গন্ডি পেরিয়ে কলেজ পর্যন্ত পৌঁছাতে পারেন, তার জন্য এই ব্যবস্থা চালু করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এই অর্থ সাহায্য পাওয়ার জন্য পাত্রীকে অবশ্যই স্নাতক পাশ হতে হবে। স্কুল স্তরে বেগম হজরত মহল রাষ্ট্রীয় ছাত্রবৃত্তি যারা পাবেন, তারাই এই সরকারি সাহায্য পাওয়ার যোগ্য। শিখ, বৌদ্ধ, জৈন এবং পার্সি সম্প্রদায়ের মেয়েদেরও এই বৃত্তি দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।

সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মধ্যে যাদের পারিবারিক আয় বার্ষিক ৪৬,০৮০ টাকার কম তারাই এই সাহায্য পাওয়ার যোগ্য বলে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে। গ্রামের বাসিন্দা হলে সেক্ষেত্রে বার্ষিক আয় ৫৬,৪৬০ টাকার কম হলে এই আর্থিক পরিষেবা পাওয়ার যোগ্য বলে বিবেচিত হবেন প্রার্থীরা। সে ক্ষেত্রে উল্লিখিত সমস্ত শর্ত পূরণ করতে হবে। তবেই কন্যার বিবাহের সময় পাওয়া যাবে ৫১ হাজার টাকার অনুদান।

এ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানতে এবং কন্যার বিবাহ ক্ষেত্রে সরকারি সহায়তা পেতে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষদের https://www.india.gov.in/schemes-maulana-azad-education-foundation ওয়েবসাইটে চোখ রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।