ভয়ানক হচ্ছে “আমফান”, আরো শক্তি বাড়িয়ে রাজ্যের দিকে ধেয়ে আসছে তুফান

আজ সকাল থেকেই কলকাতার আকাশ মেঘাচ্ছন্ন, আর সেই কারণেই রোদের দেখা মেলে নি। আজ কলকাতার তাপমাত্রা সর্বনিন্ম ২৩ ডিগ্রী ও সর্বোচ্চ ৩২.৬ ডিগ্রী। আজ জোড়া ঘূর্ণাবাতের ফলে বিভিন্ন জায়গায় বৃষ্টির সমাভবনা আছে। কিন্তু এই বৃষ্টি আগামীকাল সোমবার থেকে আরও বৃদ্ধি হতে চলেছে। আজ স্বাভাবিকের থেকে ৩ ডিগ্রী কম তাপমাত্রা।

রোদের দেখা নেই সেই কারণে তাপমাত্রার তারতম্য তো ঘটবেই। এখন নিন্মচাপের কারনে কলকাতার আকাশ আজ পরিষ্কার হবে না। এদিকে আবার জোড়া ঘূর্ণাবাতের কথা জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর।আজ দ্বিতীয় দফার শেষ লক ডাউনের দিন ৩ রা মে, কিন্তু এবার ফের তৃতীয় দফার লক ডাউনের কথা ঘোষণা করেছে কেন্দ্র। আগামী ১৭ মে পর্যন্ত চলবে লক ডাউন। তাই এখন মানুষ আর ঘরের বাইরে বের হতে পারছে না। ভ্যাপসা গরমের মধ্যে তারা ঘরের মধ্যেই দিন কাটাচ্ছে কিন্তু এই সব ঝড় বৃষ্টি তাদের কিছুটা হলেও স্বস্তি দেবে। এদিকে বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ অনেকটাই বৃদ্ধি পেয়েছে।

সর্বোচ্চ ৯৫%। এখনও পর্যন্ত অনেকজায়গায় বিভিন্ন পরিমাণে বৃষ্টি হয়েছে। জানা গিয়েছিল এই চলতি সপ্তাহে বৃষ্টির পরিমাণ বৃদ্ধি পাবে অনেকটাই, কিন্তু এবার আগামী সপ্তাহেও যে দারুণ ভাবে ঝড় বৃষ্টি বিরাজ করবে রাজ্যে সেটা স্পষ্ট জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। এদিকে অসম থেকে উত্তরপ্রদেশ পর্যন্ত জোড়া ঘূর্ণাবাত বিরাজ করছে। সারা রাজ্য জুড়েই ঝড় বৃষ্টির দাপট বিরাজ করবে, দক্ষিণ বঙ্গের বিভিন্ন জেলায় বিশেষ করে পশ্চিমের জেলায় ভালোই প্রভাব পরতে চলেছে। পূর্ব মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, আরও বিভিন্ন জায়গায়।

এদিকে আবার আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে দক্ষিণ পূর্ব বঙ্গোপসাগর ও আন্দামান সাগরে বিরাজ করবে একটি গভীর নিন্মচাপ। আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে সেটা সেই সব জায়গায় বিরাজ করবে।এই নিন্মচাপ পরবর্তীতে ঘূর্ণিঝড় হবে কিনা সেটার পরিষ্কার জবাব পাওয়া যায় নি। তবে নিন্মচাপের দাপট ৫-৬ মে পর্যন্ত উত্তর পশ্চিম দিকে অনেকটাই অগ্রসর হবে। এদিকে একটা আন্দাজ করা যাচ্ছে হয়ত এই ঘূর্ণিঝড় এর অভিমুখ উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হবে ও বাংলাদেশ ও মায়ানমারের দিকে আছড়ে পরবে, আর তার ফলেই ভারী ঝড় বৃষ্টি, সাথে ঝড় হাওয়া ৭০ কিমি স্পিডে বিরাজ করবে উপকূলের জেলা গুলোতে।।

সব খবর সরাসরি পড়তে আমাদের WhatsApp  Telegram  Facebook Group যুক্ত হতে ক্লিক করুন