কো’ভি’ড টি’কা’র দ্বিতীয় ডো’জ নিতেই শরীর পরিণত হলো চু’ম্ব’কে, দাবি বৃদ্ধের

করোনা টিকাকে কেন্দ্র করে ইতিপূর্বে মানুষের মনে বহু সন্দেহ দেখা দিয়েছে। টিকার কার্যকারিতা এবং পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নিয়ে সন্দেহের বশবর্তী হয়ে এখনো অনেকেই টিকা নিতে চাইছেন না। তবে করোনা টিকা নিয়ে যদি কেউ চুম্বকে পরিণত হয়ে যান! তাহলে কি টিকা নেওয়ার প্রতি মানুষের আগ্রহ বাড়বে না কমবে? শুনতে অবাক লাগলেও মহারাষ্ট্রের নাসিকের এক প্রৌঢ়ের সঙ্গে ঘটেছে এমন ঘটনা।

ঠিক কী ঘটেছে? মহারাষ্ট্রের নাসিকের শিবাজি চকের বাসিন্দা অরবিন্দ জগন্নাথ সোনার কিছুদিন আগেই করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছিলেন বলে জানা যাচ্ছে। আর তারপর থেকেই নাকি তিনি তার শরীরে এমন অদ্ভুত শক্তি লাভ করেছেন বলে তার দাবি। তিনি দেখেন যে তার শরীরের কাছাকাছি কোনো থালা-বাটি কিংবা চামচ আনা হলেই তা শরীরে আটকে যাচ্ছে!

প্রথমটাই অবশ্য স্বাভাবিকভাবেই তার পরিবারের সদস্যরা তার কথার গুরুত্ব দিতে চাননি। সকলেই ভেবেছিলেন হয়তো ঘর্মাক্ত শরীরে আটকে যাচ্ছে বাসন। কিন্তু অরবিন্দবাবু স্নান করে আসার পরেও তার শুকনো শরীরেও একই ঘটনা ঘটতে থাকে। সম্প্রতি এই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে ওই প্রৌঢ়ের শরীরে সত্যসত্যই থালা-বাটি চামচ আটকে যাচ্ছে!

কেন তার সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটছে এর কোনো উপযুক্ত জবাব নেই চিকিৎসকদের কাছেও। নাসিকের চিকিৎসক অশোক থোরাট জানাচ্ছেন যে, এই বিষয়টির খবর তার কাছেও এসে পৌঁছেছে। তবে ওই ব্যক্তিকে সম্পূর্ণভাবে পরীক্ষা-নিরীক্ষা না করে কোনো সিদ্ধান্তে উপনীত হতে তিনি রাজি নন। তবে চিকিৎসকরা যাই বলুন না কেন, এমন “দৈবশক্তি” লাভের পর ওই প্রৌঢ়কে কেন্দ্র করে নেটদুনিয়ায় ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।