টাকার বিনিময়ে টিআরপি বাড়িয়ে চলেছে রিপাবলিক টিভি, অভিযোগ মুম্বই পুলিশের

“টাকার বিনিময়ে টেলিভিশন রেটিং পয়েন্ট তথা টিআরপি কিনেছে রিপাবলিক টিভি”, জনপ্রিয় টিভি সাংবাদিক অর্ণব গোস্বামীর সংবাদ চ্যানেল রিপাবলিক টিভির বিরুদ্ধে এমনই অভিযোগ আনলেন মুম্বই পুলিশ কমিশনার পরম বীর সিং। রিপাবলিক টিভি ছাড়াও টাকার বিনিময় টিআরপি কেনার অভিযোগ উঠল আরো দুই সংবাদ চ্যানেলের বিরুদ্ধে। সে দুটি হলো, ফক্ত মরাঠি এবং বক্স সিনেমা। এই তিনটি চ্যানেল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে তদন্ত করতে চলেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার মুম্বইয়ের পুলিশ কমিশনার পরম বীর সিং এই তিনটি সংবাদ চ্যানেল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে এই বিস্ফোরক অভিযোগ আনলেন। তার অভিযোগ, অর্ণব গোস্বামীর রিপাবলিক টিভি, ফক্ত মরাঠি এবং বক্স সিনেমা নামক তিনটি সংবাদ চ্যানেল এর বিরুদ্ধে কারসাজি করে টিআরপি বাড়ানোর অভিযোগ উঠেছে। এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। শীঘ্রই এই তিনটি চ্যানেলের প্রোমোটার এবং ডিরেক্টরদের ডেকে পাঠানো হবে বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য, “হংস” নামক একটি সংস্থার বিরুদ্ধেও মুম্বাই পুলিশ কমিশনারের অভিযোগের তীর উঠেছে। তার দাবি, এই তিনটি সংবাদ সংস্থার অনৈতিক কার্যকলাপে সম্পূর্ণ সাহায্য করেছে “হংস” নামক সংস্থাটি। তিনি আরো জানিয়েছেন, এই অনৈতিক পরিকল্পনা বাস্তবায়িত করতে মুম্বাইয়ে প্রায় ২০০০ টি ব্যারোমিটার বসিয়েছে সংবাদ সংস্থা গুলি। তার স্পষ্ট অভিযোগ, সংবাদ সংস্থার পক্ষ থেকে বেশ কয়েকজন ব্যক্তি মুম্বাইয়ে বাড়ি বাড়ি ঘুরে টাকার বিনিময়ে এই তিনটি চ্যানেল সব সময় খুলে রাখার নির্দেশ দিচ্ছে।

মুম্বাই পুলিশের দাবি,বেশ কয়েকটি পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে তারা জানতে পেরেছেন, চ্যানেল কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে প্রতিমাসে তাদের ৪০০-৫০০ টাকা দেওয়া হয় চ্যানেলের টিআরপি বাড়াতে। এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ইতিমধ্যেই দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মুম্বাই পুলিশের তরফ থেকে এই তথ্য ইতিমধ্যেই ভারতের তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রীর কাছে পাঠানো হয়েছে বলে জানা গেছে। তবে, এই অভিযোগ সম্পূর্ণ অস্বীকার করেছে রিপাবলিক টিভি। সূত্রের খবর, মুম্বাই পুলিশ কমিশনারের বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযোগ দায়ের করতে চলেছে সংবাদ সংস্থাটি।