যানজট এড়াতে মাথাভাঙায় টোটো নিয়ন্ত্রণে নামল পুলিশ

কোচবিহার- টোটোর দাপট নিয়ন্ত্রণে আনতে একাধিক পদক্ষেপ নিল মাথাভাঙা থানার পুলিশ। আজ মাথাভাঙা থানার ট্রাফিক ওসি শাহ আলি ইমামের নেতৃত্বে মাথাভাঙা শহরে টোটো নিয়ন্ত্রণে অভিযান চালায় পুলিশ। প্রথমে মাথাভাঙা মহকুমা হাসপাতালের ভিতরে রোগী ছাড়া টোটো প্রবেশ পুরোপুরি ভাবে নিষিদ্ধ করে দেওয়া হয়। লম্বা বাঁশ, লোহার রড এমনকি টিন যাতে টোটোতে পরিবহন না করা হয়, সে বিষয়ে সতর্ক করা হয়। শুধু তাই নয়, হাসপাতাল চত্বরে রাস্তার দুপাশে নির্মাণ কাজে ব্যবহার করা নানান সামগ্রী ফেলে রাখা, ফুটপাত দখল করে রাখা নিয়েও পুলিশ পদক্ষেপ গ্রহণ করে।

মাথাভাঙা থানার আইসি তপন পাল বলেন, “মাথাভাঙা শহরের যানজট এড়াতে যা যা পদক্ষেপ গ্রহণ করা প্রয়োজন তা পুলিশের পক্ষ থেকে সেই পদক্ষেপ গুলি নেওয়া হচ্ছে। আশাকরি খুব শীঘ্র মাথাভাঙা শহরকে আমরা যানজট মুক্ত করতে পারবো।” পুলিশের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন শহরের বাসিন্দারা।

এক বাসিন্দার কথায়, “মাথাভাঙা শহরের বেশ কিছু রাস্তায় টোটোর দাপটে যাতায়াত করা খুব মুশকিল হয়ে উঠেছে। পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে উদ্যোগী হয়ে যানজট নিয়ন্ত্রণ করতে অভিযান চালানো হচ্ছে। এটা খুবই প্রশংসনীয় কাজ। মূলত রাস্তার দুধারেই মাথাভাঙা শহর। আর রাস্তার যত্রতত্র টোটো দাঁড়িয়ে যানজটের সৃষ্টি করছে। ঘটছে দুর্ঘটনাও। মাথাভাঙা হাসপাতাল চত্বরে তো রোগী ও তাঁদের আত্মীয় স্বজনদের যানজটের মধ্যে পড়ে দুর্ভোগ পোয়াতে হচ্ছে। একই ভাবে পোস্ট অফিস মোড়, বাজার, মিনিবাস স্ট্যান্ড এলাকায় টোটোর জন্য মাঝে মধ্যেই ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়ে থাকে। এবার পুলিশের তৎপরতায় সেই যানজট নিয়ন্ত্রণ হওয়ার আশায় মাথাভাঙার মানুষ।