OMG, নিমিষে ছড়িয়ে পড়ছে নতুন ক’রো’না, ফের তিন সপ্তাহের লকডাউন

করোনা ভ্যাকসিন এসে গেছে এই নিয়ে আশায় বুক বাঁধছে বিশ্ববাসী,কিন্তু এর মধ্যেই যে করো না খেলে নিয়েছে তার মাস্টার স্ট্রোক সেটা অনেকেরই অজানা।কারণ ইতিমধ্যেই নতুন ট্রেনের করোনা এসে গেছে বাজারে। যার ফলে আগের থেকে আরও বেশি দ্রুত মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে করোনায়। যার শিকার এবার ব্রিটেন, ইতিমধ্যে ব্রিটেনে নতুন স্ট্রেনের করোনা আক্রমণ করে ফেলেছে যার কারনেই দেশের সরকার একেবারে ভ্যাবাচাকায়। ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন ইতিমধ্যে জানিয়ে দিয়েছে ফের ব্রিটেনে হতে চলেছে ছয় সপ্তাহের টানা লকডাউন।

গতকাল সোমবার তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, ব্রিটেনে আগামী ছয় সপ্তাহ থাকবে পূর্ণ লকডাউন, থাকবে সমস্ত স্কুল-কলেজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ।মোটকথা বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন এই মুহুর্তের মধ্যেই যদি সংক্রমণে লাগানা লাগানো যায় তাহলে আগামী দিনে ফের ব্রিটেনের স্বাস্থ্য পরিষেবা ভেঙে পড়বে। গতকাল সোমবার দেশবাসীর উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বক্তব্য রেখেছেন এবং তিনি সেখানে জানিয়েছেন, আমরা করণা পরিস্থিতিতে কতটা লড়াকু ভূমিকা গ্রহণ করেছে সেটা নতুন করে বলার কিছু নেই। ইতিমধ্যে করোনার টিকা করন ব্যবস্থায় ব্রিটেনের অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে। এতদিন পর্যন্ত আমরা করোনার জন্য দারুণভাবে লড়াই করে এসেছি।

কিন্তু এখন পরিস্থিতি আবার বদল ঘটেছে।যে কারণে আমাদের সুস্থ থাকতে ব্রিটেনের স্বাস্থ্য পরিকাঠামো ঠিক রাখতে সবাইকে ঘরে থাকা উচিত। তাই আগামী ছয় সপ্তাহ পূর্ণ লকডাউন থাকবে ব্রিটেনে। গত এপ্রিল থেকেই ব্রিটেনের স্বাস্থ্য পরিকাঠামো অনেকটাই ভেঙে পড়েছিল, খারাপ হয়ে পড়েছিল হাসপাতাল গুলোর অবস্থা। কিন্তু এবারের মধ্যেই আবার নতুন স্ট্রেইন হানা দিয়েছে। এবার সেই সব থেকে মানুষকে বাঁচাতে আগের থেকেই ব্যাবস্থা নেওয়া উচিত। ইতিমধ্যেই ২৭ হাজার মানুষের আক্রান্ত হয়েছে।