এই মুহূর্তে কমছে না স্বল্প সঞ্চয়ে সুদের হার, বিজ্ঞপ্তি জারি করেও প্রত্যাহার করলেন নির্মলা

২০২০-২০২১ অর্থ বছরের শেষ দিনেই মধ্যরাতে মধ্যবিত্তের সঞ্চয়ের উপর কোপ বসালো কেন্দ্র সরকার। যার দরুন পিপিএফ (PPF) ও স্বল্প সঞ্চয়ে সুদের হারের উপর জোর ধাক্কা নেমে এসেছিল। বিগত ৪৬ বছরের ইতিহাসে ভারতে এই প্রথম পিপিএফের সুদের হার এতটা কমানো হয়। যার সরাসরি প্রভাব মধ্যবিত্তের সঞ্চয় ফান্ডের উপরেই পড়তো। তবে স্বস্তি একটাই, রাতারাতি সিদ্ধান্ত বাতিল করে নিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী।

গত বুধবার বিগত অর্থবছরের শেষ দিনে কেন্দ্রীয় সরকার তরফ থেকে প্রকাশিত হয়েছিল এই সংক্রান্ত একটি বিবৃতি। এই বিবৃতিতে স্পষ্ট উল্লেখ ছিল, ২০২১-২০২২ অর্থবছরে পিপিএফের সুদের হার ৭.১ শতাংশ থেকে কমে ৬.৪ শতাংশ করা হয়েছে। ঠিক একইভাবে স্বল্প সঞ্চয়ের উপর সুদের হারও কমেছে। সেভিংস অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে সুদের হার ৪ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৩.৫ শতাংশ করা হয়েছে।

যারা এক বছরের মেয়াদে টাকা রাখতে চান তাদের ক্ষেত্রেও সুদের হার পরিবর্তন হয়েছে। এক বছরের মেয়াদের ক্ষেত্রে ত্রৈমাসিক সুদের হার ৫.৫ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৪.৪ শতাংশ করা হয়েছে। প্রবীণদের সঞ্চয়ের উপর সুদের হারেও কিন্তু সরকারের কোপ পড়েছে। প্রবীণদের ক্ষেত্রে সেভিংস একাউন্টের উপর ত্রৈমাসিক সুদের হার ৭.৪ শতাংশ থেকে কমিয়ে করা হল ৬.৫ শতাংশ।

তবে ঘোষণা হয়ে যাওয়ার পরেও রাতারাতি সেই ঘোষণা বাতিল করে দেওয়া হল কেন্দ্রের তরফ থেকে। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী একটি টুইট বার্তায় জানিয়েছেন, গতরাতে ভুল করে ওই ঘোষণা করা হয়েছে। তবে তাতেও অবশ্য মধ্যবিত্তের কপালের ভাঁজ মিটছে না। তাদের আশঙ্কা, সম্ভবত দেশজুড়ে বিভিন্ন রাজ্যের ভোটের কারণেই সিদ্ধান্ত পিছিয়েছে কেন্দ্র। অচিরেই এই সিদ্ধান্ত কার্যকর করা হতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন সাধারণ মানুষ।