দেশের অর্থনীতি চাঙ্গা করতে নয়া ঘোষণা করলেন নির্মলা সীতারামন

করোনা মহামারীর আবহে লকডাউনের জেরে দেশের অর্থনীতি বিপর্যস্ত। ব্যবসা-বাণিজ্য, শিল্প, কল-কারখানাগুলি দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর আনলক পর্বে ধীরে ধীরে ছন্দে ফেরার চেষ্টা করলেও, এখনো তা অনেক পিছিয়ে আছে। এদিকে অসংগঠিত ক্ষেত্রগুলিতে কর্মী ছাঁটাই এবং কর্মীদের বেতন সংকোচনসহ একাধিক কর্মকান্ডের ফলে বাজারে চাহিদা কমে গেছে। চাহিদা কমে যাওয়ার ফলে স্বাভাবিকভাবেই মার খাচ্ছে অর্থনীতি।

অর্থনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, বাজারের চাহিদা বৃদ্ধি করতে গেলে প্রথমেই জনসাধারণের হাতে নগদ অর্থের যোগান দিতে হবে। সেই পরামর্শ বিবেচনা করে এবার অর্থনীতির বাজারে চাহিদা বৃদ্ধি করতে উদ্যোগী হলো কেন্দ্র। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন সোমবার একটি সাংবাদিক বৈঠকের আয়োজন করে জানালেন, দেশের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে কনজিউমার ডিমান্ড বাড়িয়ে তুলতে হবে। তার জন্য একাধিক পদক্ষেপ গ্রহণ করবে কেন্দ্র।

অর্থমন্ত্রী জানালেন, জনসাধারণের হাতে নগদের যোগান বাড়ানোর উদ্দেশ্যে সরকারি কর্মচারীদের জন্য “LTC Cash Voucher Scheme” ও “Special Festival Advance Scheme” আনতে চলেছে কেন্দ্র। এর ফলে সরকারি কর্মীদের হাতে নগদের যোগান বাড়বে। এই টাকা খরচের মাধ্যমে অর্থনীতির ক্ষেত্রে চাহিদাও বাড়বে। উল্লেখ্য, আনলক পর্বে যোগান যদিওবা বেড়েছে, কিন্তু নগদ অর্থের অভাবে চাহিদা সেভাবে বৃদ্ধি পায়নি।

পিছিয়ে পড়া অর্থনীতিকে পুনরায় তার মূলস্রোতে ফিরিয়ে আনতে লকডাউনের মাঝেই প্রধানমন্ত্রীর “আত্মনির্ভর” প্রকল্পের আওতায় ২০ লক্ষ কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজ ঘোষণা করে কেন্দ্র। বাজারে চাহিদা যেখানে তলানিতে ঠেকেছে, সেখানে কেন্দ্রের এই প্রকল্পের সারবত্তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন বিরোধীরা। অর্থনৈতিক উপদেষ্টারা বরাবর সাধারণ মানুষের হাতে নগদ অর্থের জোগান দেওয়ার পক্ষেই সওয়াল করেছেন। সেই পরামর্শ মেনে নিয়েই এবার এই নতুন নীতি গ্রহণ করলো কেন্দ্র।