নতুন বছরে নয়া উপহার মোদি সরকারের, ইপিএফ গ্রাহকদের মিলবে ৮.৫% সুদ

ইপিএফ গ্রাহকদের জন্য নববর্ষের উপহার ঘোষণা করলেন কেন্দ্রীয় সরকার। দেশের প্রায় ছয় কোটি ইপিএফ একাউন্টধারী ২০১৯-২০ অর্থবছরের ইপিএফ সুদের জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছিলেন। তাদের সেই অপেক্ষার অবসান ঘটালো কেন্দ্রীয় সরকার। কেন্দ্রে তরফ থেকে প্রকাশিত একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ইপিএফ একাউন্টধারীদের প্রভিডেন্ট ফান্ডে বেশ বড়সড় বোনাস দিতে চলেছে কেন্দ্র।

কেন্দ্রের তরফ থেকে গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুসারে, ইপিএফ একাউন্ট ধারীদের প্রভিডেন্ট ফান্ডে বোনাস স্বরূপ ৮.৫ শতাংশ হারে সুদ দেবে কেন্দ্রীয় সরকার। উল্লেখ্য গত বছরের শেষ দিনেই অর্থাৎ বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে এই বিশেষ ঘোষণা করেন কেন্দ্রীয় শ্রম এবং কর্মসংস্থান মন্ত্রী সন্তোষ গাঙ্গওয়ার। তিনি জানান ৩১শে ডিসেম্বর থেকেই ইপিএফ একাউন্ট ধারীরা কেন্দ্রীয় সরকারের এই বিশেষ ঘোষণার সুফল পাবেন।

তিনি আরও বলেন, ২০২০ সালের শুরুর দিকেই মোদি সরকার ইপিএফ একাউন্ট ধারীদের ৮.৫ শতাংশ হারে সুদ প্রদানের আশ্বাস দিয়েছিলেন। তবে ২০২০তে তা সম্ভব হয়নি। কিন্তু এবার বছর শেষের শেষ দিনেই দেশের প্রায় ছয় কোটি ইপিএফ একাউন্ট ধারীর একাউন্টে নির্ধারিত সুখ প্রদানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। ইতিমধ্যে এই প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গিয়েছে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় শ্রমমন্ত্রী।

উল্লেখ্য,ইপিএফ একাউন্ট ধারীরা যদি তাদের প্রভিডেন্ট ফান্ডের ব্যালেন্স জানতে চান তাহলে বাড়িতে বসেই তা জানতে পারবেন। এক্ষেত্রে তারা এসএমএস, অনলাইন, মিসড কল এবং উমং অ্যাপ ব্যবহার করে বাড়িতে বসেই নিজেদের প্রভিডেন্ট ফান্ডের ব্যালেন্স চেক করে নিতে পারবেন।