‘আমাদের মতামত কেউ নিচ্ছে না’, মোদীর ভিডিও কনফারেন্স বৈঠকে সরাসরি তোপ মমতার

ফাইল ছবি

এবার প্রধানমন্ত্রীর বৈঠকে মমতা ব্যানার্জি কেন্দ্রকে তোপ দেগে কথা বললেন। কেন্দ্র কোনোভাবেই সাহায্য করছে না রাজ্যকে। রাজ্যের কোনো কথাই শুনছে না তারা, এই জটিল সময়ে রাজনীতি করছে। তিনি আরও বলেন, কেন্দ্র কোনোভাবেই বাংলাকে গুরুত্ব দিচ্ছে না, তারা স্ক্রিপ্ট হিসেবে কাজ করে যাচ্ছে। এদিকে আজ মুখ্যমন্ত্রী দের নিয়ে বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী। আগামী ১৭ মের পরে কি দেশে লক ডাউনের মেয়াদ বাড়ানো হবে, না লক ডাউন একেবারে উঠিয়ে দেওয়া হবে, এইসব নিয়েই আজকের বৈঠক।

আর সেই বৈঠকেই মমতা ব্যানার্জি কেন্দ্রের দিকে তোপ দেগে বলেন, রাজ্যের কোনো কথাই শুনছে না কেন্দ্র। মমতা ব্যানার্জি এখনেই থামেন নি, তিনি বলেন রাজ্যে যে কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি পাঠানো হয়েছে, সেটাও রাজ্যের কাছে একবার জিজ্ঞেস পর্যন্ত করা হয় নি। তাছাড়া রাজ্যের সাথে কেন্দ্রের এই করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, মৃত্যুর সংখ্যা না মেলা, টেস্ট কিট পাঠানো সব মিলিয়ে কেন্দ্রের সাথে রাজ্যের একটা ঠান্ডা লড়াই অনেক দিন থেকেই শুরু হয়ে গেছে।

মমতা ব্যানার্জি জানায়, তারা অর্থাৎ কেন্দ্রীয় দলগুলো রাজ্যের নিয়ম লঙ্ঘন করছে, তারা লক ডাউন মেনে কাজ করছে না, সাথে স্বাস্থ্য মন্ত্রী হর্ষবর্ধন কেনো ১০ রাজ্যের মধ্যে বাংলাকে বেছে নাল, এটা নিয়েই উঠেছে সবার মনে। কেন্দ্রের দুটি প্রতিনিধি দল পাঠানো হয়েছে ,যারা উওরবঙ্গ, ও দক্ষিণবঙ্গ চষে বেড়িয়েছে। তাদের বক্তব্য রাজ্য কোনোভাবেই মানছে না নিয়ম। তাছাড়া রাজ্য কোনো সাহায্যই করছে না, এবার এই কথা বলার পরেই কেন্দ্রের সাথে রাজ্যের সংঘাত আরও বৃদ্ধি পেয়েছে। এখন বাংলাতে নজর কেন্দ্রের, কারণ প্রতিনিধি দল রিপোর্ট দিয়েছে, বাংলার অবস্হা অনেকটাই ,সেখানে মৃত্যুর সংখ্যা অনৈকটাই বেশী। যার ফলেই রাজ্য এখন অনেকটা চাপের মধ্যে।