হালকা-মাঝারি বৃ’ষ্টি’পা’ত চলতেই থাকবে, গ’র’ম থেকে মি’ল’বে রে’হা’ই, কি বললো হা’ও’য়া অ’ফি’স শুনে নিন

বৈশাখের নিদারুণ তাপপ্রবাহ থেকে আপাত স্বস্তিতে বঙ্গবাসী। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর এর রিপোর্ট অনুসারে আগামী এক সপ্তাহের জন্য রাজ্য ঝড় বৃষ্টির প্রভাব অব্যাহত থাকবে। তবে সকাল থেকে অবশ্য আকাশে সূর্যের প্রভাব ভালোমতোই টের পাওয়া যাবে। কিন্তু বিকেল হলেই স্বস্তির বৃষ্টি নেমে আসবে কলকাতাসহ সমগ্র দক্ষিণবঙ্গে। আগামী এক সপ্তাহ বিকেল থেকে সন্ধ্যার মধ্যে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতে ভিজবে শহর।

প্রসঙ্গত শনিবার কলকাতায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছিল। স্বাভাবিকের থেকে যা প্রায় এক ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৮৭ শতাংশ। গত রবিবার থেকেই রাজ্যজুড়ে বৃষ্টিপাত শুরু হয়েছে। আজও সেই ধারা অব্যাহত। গত শুক্রবারের পর শনিবারেরও সকালের আকাশ বেশ পরিষ্কার ছিল। তবে সন্ধ্যে হতে না হতেই ঘন কালো মেঘে ছেয়ে যায় আকাশ।

আগামী ৪ থেকে ৫ দিন উত্তর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি, পূর্ব মেদিনীপুর, পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, দুই বর্ধমান, বীরভূম, মুর্শিদাবাদ এবং নদিয়াতেও হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর। আবহাওয়ার বিশেষ কোনো পরিবর্তনের ইঙ্গিত দিচ্ছে না মৌসম বিভাগ।

এদিকে উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুরেও বজ্রবিদ্যুৎসহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। প্রসঙ্গত আর কিছুদিনের মধ্যেই রাজ্যে প্রবেশ করতে চলেছে বর্ষা। তাই আর এক সপ্তাহের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গে বর্ষার আগমন ঘটবে বলে জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর।