অর্ণব গোস্বামীর গ্রেফতারি নিয়ে ফুঁসে উঠলেন কঙ্গনা, ভিডিও পোস্ট করে ক্ষোভ প্রকাশ অভিনেত্রীর

প্রায় দুই বছর পূর্বের একটি মামলার জের টেনে বুধবার সকালেই রিপাবলিকান টিভি নিউজ চ্যানেলের সম্পাদক অর্ণব গোস্বামীকে গ্রেফতার করেছে রায়গড় পুলিশ। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে রীতিমতো উত্তপ্ত মুম্বাই। এরই মাঝে আরও একবার মহারাষ্ট্র সরকারের বিরোধিতা করে অর্ণব গোস্বামীর পাশে এসে দাঁড়ালেন বলিউড “কুইন” কঙ্গনা রানাওয়াত। মহারাষ্ট্র সরকারকে “সোনিয়ার সেনা” বলে সম্মোধন করে রীতিমতো কটাক্ষ করেছেন অভিনেত্রী।

অর্ণব গোস্বামীর গ্রেপ্তারির খবর প্রকাশ্যে আসতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় মহারাষ্ট্র সরকারের বিরুদ্ধে নিজের ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন কঙ্গনা। নিজের টুইটার হ্যান্ডেল একটি ভিডিও বার্তার মাধ্যমে মহারাষ্ট্র সরকারকে এক হাত নিয়ে কঙ্গনার বক্তব্য,”আজ অর্ণব গোস্বামীর বাড়িতে গিয়ে ওনার সঙ্গে ধস্তাধস্তি করে, ওনার চুল ধরে টেনে তার প্রতি রীতিমতো অভব্য আচরণ করে তাকে গ্রেপ্তার করেছে মহারাষ্ট্রের প্রশাসন।”

মহারাষ্ট্র সরকারের প্রতি প্রশ্ন ছুঁড়েলেন বলিউড অভিনেত্রী,”এভাবে আর কত মানুষের ঘর ভাঙ্গা হবে? কতজনের আওয়াজ বন্ধ করার প্রচেষ্টা চালানো হবে?” কুইনের দাবি,”খুব বেশি দিন এভাবে মানুষের কন্ঠ রোধ করে রাখা যায় না। একজনের আওয়াজ বন্ধ করলে, অপরজন অন্যায়ের বিরুদ্ধে সরব হবেনই”। মহারাষ্ট্রের কংগ্রেস সরকারকে আক্রমণ করে কঙ্গনার মন্তব্য, “সোনিয়া সেনা, এভাবে আপনারা কতজনের মুখ বন্ধ করার চেষ্টা করবেন?”

মহারাষ্ট্রের কংগ্রেস সরকারকে, পেঙ্গুইন এবং পাপ্পু সেনা বলেও সম্বোধন করেছেন কঙ্গনা রানাওয়াত। এদিনের ভিডিও বার্তায় তিনি বলেছেন, “পেঙ্গুইনের মতো কাজ করলে লোকে পেঙ্গুইন সেনা বলবেই। পাপার পাপ্পু সেনার মতো কাজ করলে তাদের পাপ্পু সেনাই বলা হবে। এতে রাগের কোনো কিছু নেই।” ভিডিওবার্তার শেষে কঙ্গনা বলেছেন,” সোনিয়া সেনা বললে যদি তোমাদের রাগ হয় তাহলে শুনে রাখ, তোমরা সোনিয়া‌ সেনাই বটে।”