ফিরছেন পুরোন পেশাতেই? জিতেন্দ্রর বিজেপিতে যোগ নিয়ে বাড়ল জল্পনা

আসন্ন একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগে দলবদলের এই মরসুমে তৃণমূল দল ছেড়েছেন বহু হেভিওয়েট নেতা। এদের মধ্যে বেশির ভাগ জনই তৃণমূলের বিরোধী রাজনৈতিক শিবির বিজেপি দলে পা বাড়িয়েছেন। তবে বেশ কিছু জন এবার তৃণমূল দল ছাড়লেও এখনই অন্য দলে নাম লেখাতে চাইছেন না। এদের মধ্যেই একজন হলেন আসানসোলের পুরসভার প্রশাসক জিতেন্দ্র তিওয়ারি।

উল্লেখ্য, তৃণমূলের প্রাক্তন বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী আগামী শনিবারেই সম্ভবত কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের নেতৃত্বে আয়োজিত সভায় আনুষ্ঠানিকভাবে বিজেপি দলে যোগদান করতে চলেছেন। শুভেন্দু ঘনিষ্ঠ জিতেন্দ্র তিওয়ারিও সম্ভবত এই সভাতেই বিজেপি দলের নাম লেখাবেন বলে রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন শুরু হয়েছিল। কিন্তু সেই জল্পনার অবসান ঘটিয়ে জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানিয়ে দিলেন, শনিবার অমিত শাহের বৈঠকে তিনি উপস্থিত থাকবেন না।

আসানসোলের বিদায়ী মেয়র এবং পাণ্ডবেশ্বরের বিধায়ক জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানিয়েছেন, আগামী দুদিন তিনি পরিবারের সঙ্গেই কাটাতে চান। এরপর তিনি আইনজীবী হিসেবে তার পুরনো পেশাকেই ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা হিসেবে বেছে নিতে চান। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, জিতেন্দ্র তিওয়ারি তৃণমূল দল ছাড়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করার পরেই রাজ্য সরকারের তরফ থেকে তার নিরাপত্তা কর্মীর সংখ্যা কমিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আগে রাজনৈতিক নিরাপত্তা স্বার্থে জিতেন্দ্র তিওয়ারি জন্য ১০ জন নিরাপত্তা রক্ষী মোতায়েন করেছিল রাজ্য সরকার। কিন্তু তিনি তার সিদ্ধান্ত জানানোর পরেই আটজন নিরাপত্তারক্ষী সরিয়ে নেয় রাজ্য। এমতাবস্থায় বাকি দুজনকেও জিতেন্দ্র তিওয়ারি চলে যেতে বলেছেন বলে জানানো হয়েছে। এ সম্পর্কে তার বক্তব্য, এতদিন তার জীবন মূল্যবান ছিল, তাই রাজ্য সরকারের তরফ থেকে নিরাপত্তা রক্ষীর ব্যবস্থা করা হয়েছিল। এখন আর তেমনটা নয় বলেই নিরাপত্তারক্ষী সরিয়ে নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।