“ভয়ঙ্কর খেলা হবে”, কারণ জানতে চেয়ে শোকজ নোটিশ পেলেন অনুব্রত মন্ডল

একুশের নির্বাচন উপলক্ষে রাজ্য রাজনীতি উত্তপ্ত। এই পরিস্থিতিতে প্রত্যেক রাজনৈতিক দল একে অপরের বিরুদ্ধে প্রচার চালাতে ব্যস্ত। একুশের মহাযুদ্ধে তৃণমূল এবং বিজেপি কার্যত সম্মুখ সমরে দাঁড়িয়ে। এমতাবস্থায় তৃণমূল এবং বিজেপির শিবিরের নেতাকর্মীদের মুখনিঃসৃত একাধিক বির্তকিত মন্তব্যকে কেন্দ্র করে রাজ্য রাজনীতির পারদ আরও চড়ছে।

একুশের নির্বাচনের ভোটের প্রচারে বিতর্কিত মন্তব্য পেশ করার জন্য তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভোটের প্রচার চালানোর উপর ২৪ ঘন্টার জন্য নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কমিশন। এবার তার দলীয় কর্মী অনুব্রত মণ্ডলকেও শোকজ করল কমিশন। মঙ্গলবার রাতের মধ্যেই কমিশনকে জবাব পাঠাতে হবে অনুব্রত মণ্ডলকে।

একুশের নির্বাচনের প্রচার চালাতে গিয়ে অনুব্রত মণ্ডলের বিতর্কিত মন্তব্য, “খেলা হবে আরও ভয়ঙ্কর খেলা হবে।” রাজ্য শাসকদলের এক নেতার মুখের এমন বিতর্কিত মন্তব্যকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক মহলের পারদ ক্রমাগত চড়তে থাকে। যার পরিপ্রেক্ষিতে নির্বাচন কমিশনের কাছে অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হয়। আজ কমিশনের তরফ থেকে কেষ্ট মণ্ডলকে শোকজ করা হলো।

অনুব্রত মণ্ডলের বক্তব্যকে কেন্দ্র করে বিজেপির নেতা কর্মীরা অভিযোগ করেন, তৃণমূলের এই নেতা কার্যত তার বক্তব্য মারফত ভোটারদের ভয় দেখাচ্ছেন। এবার এমন বিতর্কিত মন্তব্যের দরুন ব্যাখ্যা দিতে হবে অনুব্রত মণ্ডলকে। অনুব্রত মণ্ডল প্রথমে নিজের ব্যাখ্যা জেলার নির্বাচনী অফিসারের কাছে পাঠাবেন। জেলার নির্বাচনী অফিসার এরপর রাজ্য নির্বাচন কমিশনে পাঠিয়ে দেবেন সেই ব্যাখ্যা। এরপর তা দিল্লির নির্বাচন কমিশনের কাছে পাঠিয়ে দেওয়া হবে।