নারকেল দিলেই পড়া যাবে কলেজে, গরীব মেধাবী পড়ুয়াদের জন্য অভিনব উদ্যোগ

অর্থের অভাবে মেধাবী পড়ুয়াদের পড়াশোনায় যাতে কোনোরকম ব্যাঘাত না ঘটে, তার জন্য এক অভিনব পদক্ষেপ গ্রহণ করলো ইন্দোনেশিয়ার বালিতে অবস্থিত একটি কলেজ। কলেজ কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত অনুসারে, যে সকল পড়ুয়ার কলেজের বেতন দেওয়ার সামর্থ্য নেই, সেইরকম অর্থনৈতিক ভাবে পিছিয়ে পড়া পরিবারের পড়ুয়াদের পড়াশুনা যাতে বন্ধ না হয়ে যায়, সেজন্য বেতনের বদলে শুধুমাত্র নারকেল দিয়েও কলেজে পড়াশোনা চালিয়ে যাওয়া যাবে।

বালির যে কলেজে এরকম অভিনব পদ্ধতি গ্রহণ করা হয়েছে সেই কলেজের নাম দ্য ভেনাস ওয়ান ট্যুরিজম অ্যাকাডেমি। এই কলেজে পড়ুয়াদের হোটেল ম্যানেজমেন্ট পড়ানো হয়। কলেজ কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, করোনার কারণে ইন্দোনেশিয়ার বহু মানুষ আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন। এই কলেজের বহু পড়ুয়াও বর্তমানে অর্থনৈতিক সমস্যার সম্মুখীন হয়েছেন।

এই অর্থনৈতিক দুরবস্থার প্রভাব যাতে ছাত্র-ছাত্রীদের পড়াশুনার উপর না পড়ে, সেই উদ্দেশ্যেই কলেজ ফি বাবদ নারকেল নেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে কলেজ কর্তৃপক্ষ। কলেজের আধিকারিক আয়ান পাসেক আদি পুত্রা জানালেন, কলেজে ইনস্টলমেন্টে ফি দেওয়ার বন্দোবস্ত আছে। তবে, বর্তমান করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে বেতন ব্যবস্থায় আরও নমনীয় হওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে কলেজ কর্তৃপক্ষ।

তিনি আরও জানালেন, এই কলেজে নারকেল তেল প্রস্তুত করার ব্যবস্থাও আছে। তাই যে সকল পড়ুয়া ফি বাবদ নারকেল দেবেন, তাদের দেওয়া সেই নারকেল দিয়েই তেল তৈরি করা হবে। তাই এই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।