বঙ্গোপসাগরে ফের নিম্নচাপ, ধেয়ে আসছে ঝোড়ো হাওয়ার সঙ্গে প্রবল বৃষ্টি, সতর্কতা হাওয়া অফিসের

বঙ্গোপসাগরে ঘনীভূত হচ্ছে নিম্নচাপ। নিম্নচাপের দরুন আগামী রবিবার থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনার কথা জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর। দক্ষিণবঙ্গের পাশাপাশি উত্তরবঙ্গেও ভারী বর্ষণের সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। উল্লেখ্য, বিগত বেশ কয়েকদিন ধরেই উত্তরবঙ্গে ক্রমাগত কমবেশি বৃষ্টি হয়েই চলেছে। তবে রবিবার থেকে বুধবার পর্যন্ত, বৃষ্টিপাতের পরিমাণ আরো বাড়বে বলে জানাচ্ছে মৌসম বিভাগ। আবহাওয়া দপ্তর এর তরফ থেকে ইতিমধ্যেই অতিবর্ষণের সম্ভাবনা জানিয়ে রাজ্যজুড়ে কমলা সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে।

ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাতের দরুন নদীর জল স্তর বেড়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করছে আবহাওয়া দপ্তর। পাশাপাশি, পার্বত্য এলাকায় ধ্বস নামার সম্ভাবনার কথাও জানানো হয়েছে। মৎস্যজীবীদের আগামী রবিবার থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত সমুদ্র যেতে নিষেধ করা হচ্ছে। যারা ইতিমধ্যেই সেখানে পৌঁছে গেছেন, তাদের অবিলম্বে ফিরে আসার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, সোম এবং মঙ্গলবার গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপর সক্রিয় নিম্নচাপ বিরাজ করবে।

এই নিম্নচাপের জেরেই সোমবার দক্ষিণবঙ্গে এবং মঙ্গলবার উত্তরবঙ্গে ভারী বর্ষণের সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, রবিবার পূর্ব মেদিনীপুর, উত্তর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনা, পূর্ব বর্ধমান, হাওড়া, হুগলি এবং কলকাতায় ৭০ থেকে ১১০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সোমবারে দক্ষিণবঙ্গের আরো সাতটি জেলা যেমন বীরভূম, পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, পশ্চিম মেদিনীপুর এবং ঝাড়গ্রামে ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

বৃষ্টিপাতের নিরিখে সোমবার উত্তরবঙ্গের পাঁচটি জেলা যেমন দার্জিলিং, কালিম্পং, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে ভারী বৃষ্টির দরুন হলুদ সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। মঙ্গলবারে আবার উত্তরবঙ্গের দুই জেলা দার্জিলিং এবং আলিপুরদুয়ারে ২০০ মিলিমিটারের বেশি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনার কথা জানাচ্ছে আবহাওয়া দপ্তর। পাশাপাশি জলপাইগুড়ি, কোচবিহার এবং কালিম্পংয়েও ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। মালদা উত্তর ও দক্ষিণ দিনাজপুরেও হতে পারে ভারী বৃষ্টি।