গু’ন্ডা’ভা’ই, তুমি থাকবে জে’লে, আমরা বাইরে থেকে ন’ম’স্কা’র ক’র’বো, অনুব্রতকে তো’প স্মৃতি ইরানির

রাজ্যে এখনও দুই দফার নির্বাচন বাকি। শেষ দুই দফায় রাজ্যবাসীর মন পেতে মরিয়া প্রচেষ্টা চালাচ্ছে বিজেপি এবং তৃণমূল। বীরভূমের নির্বাচন এখনো বাকি। বিজেপির হয়ে প্রচার চালাতে এবার বোলপুরে বিজেপির তরফ থেকে আয়োজিত প্রচার সভায় অংশগ্রহণ করলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি। চলতি দফায় ভোটের প্রচার চালানোর পাশাপাশি বীরভূমের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলকে নাম না নিয়েই হুঁশিয়ারি দিয়ে গেলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।

এদিন বোলপুরের জনসভায় অংশগ্রহণ করে স্মৃতি ইরানি অনুব্রত মণ্ডলের নাম না নিয়ে তাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, বোলপুরে একজন গুন্ডা ভাই রয়েছেন। তবে আগামী ২ তারিখের পর রাজ্যের সব গুন্ডাকে জেলে ঢোকানো হবে! অনুব্রত মণ্ডলকে সরাসরি “গুন্ডা ভাই” বলে সম্মোধন করে তিনি বলেন “ভোটের পর দেখা হবে। তুমি থাকবে জেলে আর আমরা বাইরে থেকে তোমাকে নমস্কার করবো”।

অনুব্রত মণ্ডলের পাশাপাশি স্মৃতি ইরানি এদিন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও কটাক্ষ করেন। তিনি বলেন, মুখ্যমন্ত্রী নিজেকে বাংলার মেয়ে বলে দাবি করছেন। বাংলার মেয়েরা কি কখনো চাল চুরি করে? কখনো দেখেছেন ঘরের মেয়ে চাল চুরি করছে? স্মৃতি ইরানি এও বলেন, বাংলায় মহিলাদের কোনো সম্মান নেই। এই নির্বাচন বাংলার সম্মান রক্ষার লড়াই বলে মন্তব্য করেন স্মৃতি ইরানি।