বিজেপি করার শাস্তি পেলেন গেরুয়া সংগঠন করা সরকারি কর্মচারী, নবান্নের নির্দেশে হলেন বদলি

এই অভিযোগ অবশ্য নতুন কিছুই না, আগের থেকেই কোঁঅর্ডিনেশন কমিটি সহ বাম সংগঠনের অভিযোগ বর্তমান রাজ্য সরকার কোনও ধরনের সচিবালয়ের বিরুদ্ধ সুর শুনতে চায় না। আর প্রতিবাদ করলেই নয়তো তাদের বদলি করে দেওয়া হয়, নয়ত টিফিন টাইমে প্রাপ্য মহার্ঘ্যভাতার দাবি তুললেই রাজ্য সরকারের রোষানলের শিকার হতে হয়। এবার শাসক দলের প্রতিপক্ষ বিজেপি সরকারী কর্মচারী সংগঠন। তারা দাবি তুলেছে, আর তার পরেই কমিটির অন্যতম সম্পাদক দেবরাজ সাহাকে ৩ রা ফেব্রুয়ারি বদলি করা হয়েছে।

এর সাথে বদলি করা হয়েছে আরও দুজনকে। যারা কিনা এই দলের সদস্য। এই দেবরাজ যাকে বদলি করা হয়েছে, তিনি পঞ্চায়েত ও গ্রামোন্নয়ন দফতরের সাথে যুক্ত। তিনি নব্বানের ৭ তলায় কাজ করত, কিন্তু তাকে বদলি করে পাঠিয়ে দয়েছে সাগরের বিডিও অফিসে। এদিকে বাকি ২ জনকে পাঠানো হয়েছে বাকুড়ার বরজোড়া ও পশ্চিম বর্ধমানের রানিগঞ্জে।

স্বাভাবিকভাবেই এই নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অন্যান্য সংগঠনের নেতৃত্ব। সেখানকার এক সংগঠনের সভাপতি সঞ্জীব পাল জানায়, আমরা আমাদের নতুন কমিটির তালিকা মুখ্য সচীব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে পাঠাই। তার পরেই উপহার হিসেবে বদলির চিঠি পাঠায় তারা। এই নিয়ে আরেকজন জানায়, এইভাবে কখনই বদলি করা যায় না। শাসক দল নিজেদের রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করতেই এই ধরনের কাজ করেছেন, কিন্তু আমরাও ছেড়ে দেওয়ার পাত্র নই।