চীনকে ছেড়ে কথা বলবো না, চীনা পণ্যের উপর আরো চড়া শুল্ক বসানো হবে: ডোনাল্ড ট্রাম্প

বর্তমানে গোটা বিশ্বে একপ্রকার ত্রাস হিসেবে ছড়িয়ে পড়েছে নভেল করোনা ভাইরাস।সমগ্র বিশ্বের প্রায় সব প্রান্তেই এই ভাইরাসের উপস্থিতি লক্ষ্য করা গিয়েছে।শুধু তাই নয় ইতিমধ্যেই জানা গিয়েছে, গোটা বিশ্বে এই ভাইরাসের দ্বারা আক্রান্তের সংখ্যা ৩২ লক্ষ অতিক্রম করে গিয়েছে। তবে এই বিষয়ে বারবারই নাম উঠে এসেছে চীনের। জানা গিয়েছে, চীনের উহান প্রদেশের একটি ল্যাব থেকেই এই ভাইরাস গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে।

প্রসঙ্গত, আমেরিকার গোয়েন্দাদের দেওয়া তথ্য অনুসারে, এই ভাইরাস উহানের ভায়রোলজি ল্যাবরেটরি থেকেই ছড়িয়েছিল গোটা চীনে।তারপর এই ভাইরাস সেখান থেকে ছড়িয়ে পড়ে গোটা বিশ্বে। বৃহস্পতিবার এমনটাই দাবি জানালেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ইতিমধ্যেই তিনি ইঙ্গিত দিয়েছেন, এই ‘অপরাধের’ শাস্তি হিসাবে চিনের পণ্যের ওপরে চড়া হারে শুল্ক তিনি বসাতে চলেছেন।

জানা গিয়েছে, এর আগে আমেরিকার ডিরেক্টর অব ন্যাশনাল ইনটেলিজেন্সের অফিস থেকে বলা হয় যে “সমগ্র বিজ্ঞানীদের মতামত অনুযায়ী করোনাভাইরাস কিন্ত ম্যানমেড নয়। কিন্তু এই বিষয়ে তাও আমরা তদন্ত জারি রেখেছি। যদি এটি ম্যানমেড না হয় তাহলে কোন প্রাণীর দেহ থেকে সংক্রমণ ছড়িয়েছিল এবং যে ল্যাবরেটরিতে এই ভাইরাস বানানো হচ্ছিল,ক্রমাগত তা জানার চেষ্টা করছি আমরা”।

এছাড়াও এই বিষয়কে ট্রাম্পকে প্রশ্ন করা হয়েছিলো যে ল্যাবরেটরি তে যে করোনাভাইরাস বানানো হচ্ছিলো , তার কি কোনও প্রমাণ আছে আপনার কাছে? ট্রাম্প এই প্রসঙ্গে জোড় দিয়ে জানান” আমাদের কাছে প্রমাণ অবশ্যই আছে।”তবে গোয়েন্দাদের বক্তব্যের ব্যপারে তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি জানায়,“এখন আপনাদের সেকথা জানাতে পারব না।”

সব খবর সরাসরি পড়তে আমাদের WhatsApp  Telegram  Facebook Group যুক্ত হতে ক্লিক করুন