কেন্দ্রের নির্দেশ অমান্য, নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও সিনেমাহলে ১০০ শতাংশ আসন বুকিংয়ের অনুমতি মমতার

করোনাকালে দীর্ঘদিন সিনেমা হল বন্ধ থাকার পর আনলক পর্বে অন্যান্য ক্ষেত্রের মতোই ধীরে ধীরে ছন্দে ফিরতে শুরু করেছে বিনোদন জগত। তবে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুসারে আপাতত ৫০ শতাংশ আসন পূরণ করেই দর্শক হলে ঢোকাতে পারবে সিনেমা হল কর্তৃপক্ষ। এতে অবশ্য হল কর্তৃপক্ষকে বেশ লোকসানের শিকার হতে হচ্ছে। বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় অবশ্য কেন্দ্রের নির্দেশ উপেক্ষা করে ১০০ শতাংশ আসন পূরণ করার পক্ষেই সওয়াল করছেন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার কলকাতার সিঙ্গল স্ক্রিন থিয়েটারের মালিকরা তাদের দাবি-দাওয়া নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর শরণাপন্ন হয়েছিলেন। তাদের বক্তব্য ছিল, ৫০ শতাংশ সিট পূরণ করে সিনেমা হল চালানো তাদের পক্ষে সম্ভব হচ্ছে না। এমতাবস্থায় ছবি উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করে বাংলার সিনেমা হল কর্তৃপক্ষকে নতুন চমক দিলেন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন নবান্নের সভাঘর থেকে মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে কেবল ৫০% দর্শক নিয়ে সিনেমা হল খোলার অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এমতাবস্থায় শীঘ্রই ১০০ শতাংশ সিট পূরণ করে সিনেমা হল খোলার অনুমোদন দিচ্ছে রাজ্য সরকার। তিনি এদিন রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে শীঘ্রই এ সংক্রান্ত একটি নির্দেশিকা প্রকাশের নির্দেশ দিয়েছেন।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক অবশ্য এখনও ৫০ শতাংশ সিট পূরণ করে সিনেমা হল খোলার সিদ্ধান্তেই অনড় রয়েছে। তবে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের এই সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করেই এদিন নিজ সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিয়েছেন। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ইম্পার প্রেসিডেন্ট পিয়া সেনগুপ্ত অবশ্য সম্প্রতি বিশিষ্ট সংবাদসংস্থা পিটিআইয়ের কাছে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে বলেন, সিনেমা হল খোলার জন্য করোনা ছড়িয়েছে, এখনো পর্যন্ত এরকম কোনো খবর মেলেনি। তিনি আরো বলেছেন, কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তের দরুন হিন্দি এবং বাংলা চলচ্চিত্র জগৎ ব্যাপক মার খাচ্ছে।