রোজগার চাইলেই ধর্মের নেশা ধরিয়ে দেওয়া হয়, মোদিকে খোঁচা বক্সিং চ্যাম্প বিজেন্দরের

করোনা মহামারীর আক্রমণের আগেই দেশের বেকারত্ব আকাশ ছুঁয়েছিল। করোনা পরিস্থিতিতে বেকারত্বের গ্রাফ আরো ঊর্ধ্বমুখী হয়েছে। মোদি জমানায় দেশের বেকারত্বের হার বিগত ৪৫ বছরের সব রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। এই নিয়ে এর আগে বহুবার বিরোধীদের সমালোচনার সম্মুখীন হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। এবার ভারতীয় বক্সার তথা কংগ্রেস কর্মী বিজেন্দর সিং দেশের বেকারত্ব উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আক্রমণ শানলেন।

সম্প্রতি নিজের টুইট পোস্টে মোদি সরকারের প্রতি একরাশ ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন বিজেন্দর সিং। বিজেপি শাসকদলের বিরুদ্ধে তার অভিযোগ, দেশের মানুষ রোজগার সম্বন্ধে প্রশ্ন তুললে, মোদি সরকারের জমানায় তাদের ধর্মের দিকে ভিড়িয়ে দেওয়া হয়। রোজগার চাইলেই “ধর্মের নেশা” ধরিয়ে দেওয়ার নীতি নিয়েছে মোদি সরকার। কিন্তু এভাবে বেশিদিন চলবে না।

করোনা পরিস্থিতিতে রোজগার হারিয়েছেন বহু মানুষ। অনেকে চাকরি থেকে বরখাস্ত হয়েছেন, অনেকের ব্যবসা মার খেয়েছে। এমনিতেই মোদি জমানায় বেকারত্বের হার সবথেকে বেশি। তার মধ্যেই করোনার থাবায় লকডাউনের জেরে দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা দুর্বল হয়ে গেছে। দেশবাসীর কর্মসংস্থান প্রসঙ্গে কেন্দ্র সরকারের ভূমিকা নিয়ে সরব হয়েছে বিরোধী দল গুলি।

উল্লেখ্য, কেন্দ্রীয় সরকারে বিরুদ্ধে সম্প্রতি “রোজগার দো” কর্মসূচি গ্রহণ করেছে কংগ্রেস। এই কর্মসূচির আওতায়, বহু রাজনৈতিক নেতা দেশের বেকারত্ব সম্বন্ধে মোদি সরকারের বিরোধিতা করে বিভিন্ন মন্তব্য পোস্ট করছেন।বিজেন্দর সিংও সম্প্রতি সেই কর্মসূচির আওতায় মোদি সরকারকে উল্লেখ করেন টুইট পোস্ট করলেন। টুইটের শেষে #RozgarDo লিখেছেন তিনি।

সব খবর সরাসরি পড়তে আমাদের WhatsApp  Telegram  Facebook Group যুক্ত হতে ক্লিক করুন