শিলিগুড়ি মহকুমার ধনসরা জোতে মুষ্টিভিক্ষা করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ

মঙ্গলবার শিলিগুড়ি মহকুমার রানিডাঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত ধনসরাজোতে মুষ্টিভিক্ষা করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিন তিনি প্রথমে ধনসরাজোত এলাকার তিনটি কৃষকের বাড়িতে গিয়ে মুষ্টিভিক্ষা করেন। এবং কৃষক সুরক্ষা অভিযানের লিফলেট ও স্টিকার বিলি করেন। পাশাপাশি এক কৃষকের কাছ থেকে সবজি কিনেন। এরপর সেখান থেকে ধনসরাজোতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ময়দানে জনসভা অংশগ্রহণ করেন।

সভামঞ্চ থেকে বলেন চাষিদের কষ্ট আমরা বুঝি। আমিও কৃষক ঘরের ছেলে। যদি বেশি বৃষ্টি বা কম বৃষ্টি হয় তাহলে চাষিদের ক্ষতি তার জন্য চাষিদের সুরক্ষা দিতে হবে। সেই জন্য কৃষক সুরক্ষা অভিযানের মাধ্যমে আমরা গ্রামে গ্রামে যাচ্ছি। চাষিদের দুঃখ কষ্ট বোঝার জন্য। আর যেদিন পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির সরকার হবে সেইদিন এই সমস্যার সমাধান করবো। এই বছর কেন্দ্র সরকারও ধান কিনছে নিজের পয়সা দিয়ে। রাজ্য সরকার যেমন কেনে কেন্দ্র সরকার তেমন সরকারি কিনবে যাতে কৃষকরা সরাসরি পয়সা পায়। আগামী দিনে আরও বেশি করে ধান আমরা কিনবো।

চাষিরা যা ধান চাষ করে তার ১০ থেকে ১২% রাজ্য সরকার কিনে আর বাকিটা খোলা বাজারে দালালের কাছে বিক্রি করতে হয়। এইটা বাড়াবো আমরা যাতে চাষিরা তাদের যোগ্য সম্মান পান। আর মোদীজি গরিবমানুদের জন্য অনেক চেষ্টা করছেন। আর গরিবদের চিকিৎসকার জন্য প্রতি পরিবারকে পাঁচ লক্ষটাকা দিবেন বলেছেন। দেশের দেড় কোটি লোক এই চিকিৎসার লাভ পেয়ে গেছেন। কিন্তু পশ্চিমবঙ্গের একজনও পায়নি কারণ মমতা ব্যানার্জি নিতে দিচ্ছে না।

এখানকার গরিব মানুষদের বিরুদ্ধে আছেন মমতা ব্যানার্জি। আমাদের ছেলেদের চাকরি করতে গুজরাত,মহারাষ্ট্রে যেতে হচ্ছে। তাদের যাতে বাইরে যেতে না হয় তার জন্য এখানেই কাজের ব্যবস্থা করা হবে। আর সকলকে অনুরোধ করে বলেন যে আপনারা যেভাবে ভোট দিয়ে লোকসভায় জিতিয়েছেন তেমন ভাবেই বিধানসভাতেও ভোট দিয়ে জেতান। তাহলে পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি সরকার আসবে আর মানুষের স্বপ্ন সফল করবে মানুষের কষ্ট দূর করবে।