বিহারে ফলছে বিশ্বের দাবি সবজি, প্রতি কেজি দাম ৮২ হাজার টাকা

চিকিৎসকরা সব সময় বলেন সুস্থ থাকতে গেলে প্রচুর পরিমাণে জল এবং শাকসবজি খেতে হবে। শাকসবজি খাবার কোন বিকল্প থাকে না। প্রত্যেক শাকসবজি আমাদের শরীরে ক্ষমতা প্রদান করে।তবে আজ যে সবজির কথা বলব সেটি কোন সাধারন সবজি নয়। ভারতের সব জায়গায় এই সবজি পাওয়া যায় না। সম্প্রতি এই সবজি চাষ করা হচ্ছে বিহারের আওরঙ্গাবাদ জেলায়। গান শুনে আপনিও হয়তো আজকে উঠতে পারেন। এই সবজির প্রতি কেজির দাম হল ৮২ হাজার টাকা। হ্যাঁ একেবারে ঠিক শুনছেন। একটা অথবা দুইটা শূন্য বাড়ায়নি।

এইসব যে পৃথিবীর সবথেকে দামি সবজির মধ্যে অন্যতম। এইসব সবজির নাম হলো হপ শুটস। ভারতের পাশাপাশি বিদেশি এই সবজির ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। এই সবজি থেকে নানারকম ওষুধ তৈরি করা যায়, তারমধ্যে টিভি রোগের প্রতিষেধক অন্যতম। এছাড়াও এন্টিবায়োটিক তৈরি করা হয় এটি থেকে। এই গাছের ফুল বিয়ার শিল্পে ব্যবহৃত করা হয়। এই সবজির কিছু অংশ চাটনিতেও ব্যবহার করে খাওয়া হয়।

পৃথিবীর বহু দেশে এই সবজির চাহিদা আছে যেমন, ব্রিটেন এবং ইউরোপীয় দেশগুলোতে। ভারতে সেই রকম ভাবে এই সবজির চাহিদা নেই।শুধুমাত্র বিহারের এই সবজি চাষ করেন অমরেশ কুমার সিং নামে এক চাষী। তিনি বিহারের ঔরঙ্গাবাদ এর নবীনগর ব্লকের করমদিহ গ্রামের বাসিন্দা। তার জমিতে তিনি এই চাষ করেন দীর্ঘদিন।

এই প্রসঙ্গে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করায় তিনি বলেছেন, তিনি বারানসি ভারতীয় উদ্ভিজ্জ গবেষণা ইনস্টিটিউটের কৃষি বিজ্ঞানী ডঃ লাল এর থেকে এই প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। dr.lal এর তত্ত্বাবধানে গোটা চাষের বিষয়টি তিনি শিখেছেন। বিগত দুই মাস আগে তিনি শুরু করেছেন এই চাষ। ভারতের আবহাওয়া তে কিভাবে এই গাছের চাষ করা সম্ভব, তা নিয়ে তৈরি হয়েছে ব্যাপক জল্পনা-কল্পনা।

তবে বিহারের চাষী আমরেশের জমিতে কিন্তু সেই প্রচেষ্টা করা হচ্ছে। আশা করা হচ্ছে যে পৃথিবীর সবথেকে দামি সবজি আমাদের এই ভারতে উৎপন্ন করা যাবে। এই দামী সবজি যদি একবার উৎপন্ন করতে সফল হয় চাষিরা, তাহলে অচিরেই চাষিরা আর্থিকভাবে স্বচ্ছল হতে পারবে।